চট্টগ্রামে সাত তলা ভবনের ছাদে দুগ্ধ খামার

প্রকাশ:| বুধবার, ২৭ জুলাই , ২০১৬ সময় ১১:৫১ অপরাহ্ণ

শাইখ সিরাজ:: দেশে সামগ্রিকভাবে আবাদি জমি কমছে, তাগিদ এসেছে ঊর্ধ্বমুখী কর্মতৎপরতার। এক্ষেত্রে ছাদ কৃষি সঠিকভাবে বাস্তবায়ন করতে পারলে, ছাদ থেকেই পারিবারিক পুষ্টি চাহিদার সিংহভাগ পুরণ করা সম্ভব। তেমনি এক অভিনব উদ্যোগ চট্টগ্রামের গোলাম রব্বানী গড়ে তুলেছিলেন বিশাল ছাদ খামার।

গোলাম রব্বানীর মৃত্যুর পর খামারটি তত্ত্বাবধানের দায়িত্ব নেন ছেলে মাহবুব রব্বানী। তিনিও তার বাবার পথ অনুসরণ করে চট্টগ্রাম মহানগরীর প্রাণকেন্দ্র দেওয়ানবাজার সাব-এরিয়ায় সাততলা বাসভবনের ছাদে ১৬ বছর ধরে সফলভাবে করে যাচ্ছেন ছাদ দুগ্ধ খামার।

এক দুই নয়, সাত তলা লিফটবিহীন ভবন। তার ছাদে দুগ্ধ খামার। প্রতিদিন সকালে এখানে ভীড় জমে খাঁটি দুধের ক্রেতাদের। দূর দূরান্ত থেকেও অনেকেই খাঁটি দুধের জন্য ছুটে আসেন এই বাসভবনে। তবে খামারের বেশিরভাগ সুফলভোগী ওই ভবনের প্রতিবেশীরা। বর্তমানে খামারীর ছোটবড় ৯টি গরুর এ খামার রয়েছে।

গরুর বর্জ্য নিষ্কাশন থেকে শুরু করে খাবার খাওয়ানো, দুধ দোয়ানো সব ব্যবস্থাই অযান্ত্রিক। হাতেই করা হয় সব কাজ। খামারে দু’জন কর্মী গাভী ও বাছুরের দেখভাল থেকে শুরু করে সবকাজ এক হাতে করেন।

ভবনের প্রতিবেশীরা জীবনে প্রথম দেখেছেন অভিনব এই দুগ্ধ খামার। তারা ‍ওই খামারের মুগ্ধ গ্রাহক। তাদের কাছে এই খামারটির গুরুত্ব আলাদাভাবে পেয়েছে।

এটি শুধু ছাদকৃষি নয়, রীতিমত সমন্বিত ছাদ কৃষির আয়োজন রয়েছে এখানে। দুধের খামারের পাশাপাশি আবাদ হচ্ছে বিভিন্ন সবজি ফসলও।সুত্র- চ্যানেল আই