২৪ ঘন্টার মধ্যেই অবৈধ বিলবোর্ড সরানোর অনুরোধ

প্রকাশ:| শুক্রবার, ১৫ জানুয়ারি , ২০১৬ সময় ০৯:৩৪ অপরাহ্ণ

অবৈধ বিলবোর্ডগ্রিন ও ক্লিন সিটির ভিশন বাস্তবায়নে আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই অবৈধ স্থাপনা, বিলবোর্ড, সাইনবোর্ড, প্লে-কার্ড, ব্যানার, ফেষ্টুন ইত্যাদি নিজ উদ্যোগে সরিয়ে নেওয়ার অনুরোধ করেছেন চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দিন।

শুক্রবার সন্ধ্যায় গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে মেয়র এ আহ্বান জানান। এমনিতে গতকাল বৃহস্পতিবার থেকে নগরীর পাঁচ পয়েন্টে বিলাবোর্ড বিরোধী সাঁড়াশি অভিযান শুরু হয়েছে। গত রাতের অভিযানে ১২টি বিল বোর্ড অপসারণ করেছে চসিক, জেলা প্রশাসন ও সিএমপির ভ্রাম্যমান আদালত।

সিটি করপোরেশনের এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গ্রিন ও ক্লিন সিটির ভিশন বাস্তবায়নের লক্ষে পূর্ব ঘোষনানুযায়ী ১৪ জানুয়ারি বৃহষ্পতিবার রাত থেকে নগরীতে অবৈধ বিলবোর্ড ও স্থাপনা উচ্ছেদে ক্রাস প্রোগ্রাম চালু করা হয়েছে। সবুজায়নের মাধ্যমে নান্দনিকতায় নগরীকে সাজানোর লক্ষে অসুন্দর, সৌন্দর্য হানিকর ও কুৎসিত দুর করে সুন্দর ও নান্দনিকতায় প্রাচ্যেররাণী বারআওলিয়ার পূণ্যভুমি চট্টগ্রামকে দেশ ও বিদেশের কাছে উপস্থাপনে এ ক্রাস প্রোগ্রাম।

বিবৃতিতে মেয়র বলেন, ‘ক্রাস প্রোগ্রামের মাধ্যমে নগরীতে বিদ্যমান অবৈধ স্থাপনা, বিলবোর্ড, সাইনবোর্ড, প্লে-কার্ড, ব্যানার, ফেষ্টুন ইত্যাদি উচ্ছেদ করা হচ্ছে। এ অভিযানের কারনে যানজট সহ বিদ্যুৎ ও অন্যান্য ক্ষেত্রে নগরবাসীর সাময়িকভাবে কিছুটা অসুবিধা হলেও বৃহত্তর স্বার্থে তা সহজভাবে গ্রহণ করতে হবে। নাগরিক স্বার্থে অবিলম্বে অবৈধ স্থাপনা, বিলবোর্ড, সাইনবোর্ড, প্লে-কার্ড, ব্যানার, ফেষ্টুন ইত্যাদি স্ব উদ্যোগে আগামী ২৪ ঘন্টার মধ্যে সরিয়ে নেওয়ার জন্য সংশ্লিষ্ট মালিকদের অনুরোধ জানানো হচ্ছে।’

তিনি বলেন, ‘বিদ্যুতের খুটি, ইউনিপোল সহ যত্রতত্র লাগানো যাবতীয় সাইনবোর্ড, প্লে-কার্ড ও ফেষ্টুন, অবৈধ প্রদর্শনী বিজ্ঞাপণ তুলে ফেলা এবং মডেল ট্যাক্স প্রদান ছাড়া দেয়ালে প্রদর্শিত সকল বিজ্ঞাপণ মুছে ফেলার অনুরোধ করা হচ্ছে। এক্ষেত্রে সম্মাণিত নগরবাসীর সার্বিক সহযোগিতা কামনা করছি।’


আরোও সংবাদ