২০ পার্সেন্ট ভোট পাবে আওয়ামী লীগ

প্রকাশ:| বৃহস্পতিবার, ২৬ সেপ্টেম্বর , ২০১৩ সময় ১১:৪৫ অপরাহ্ণ

 হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ।এই মুহূর্তে সবচেয়ে জনপ্রিয় দল জাতীয় পার্টি (জাপা), আর ‘ধিকৃত’ দল আওয়ামী লীগ বলে মন্তব্য করেছেন এইচ এম এরশাদ।

আজ বৃহস্পতিবার বিকেলে রাজধানীর সুন্দরবন হোটেল মিলনায়তনে জাতীয় যুবসংহতির এক মতবিনিময় সভায় বর্তমান নির্বাচনপদ্ধতির পরিবর্তন করতে সরকারের প্রতি দাবি জানিয়ে জাপার চেয়ারম্যান এরশাদ এ মন্তব্য করেন।

সভায় জাতীয় পার্টিকে সবচেয়ে জনপ্রিয় দল অভিহিত করে এরশাদ নেতা-কর্মীদের প্রশ্ন করেন, এই মুহূর্তে জনগণের কাছে সবচেয়ে ধিকৃত দল কোনটি? কর্মীরা ‘আওয়ামী লীগ’ বললে এরশাদ বলেন, ‘আমি নামটি বলতে চাই না। আগে ৪০ পার্সেন্ট ভোট পেলেও এবার তারা ২০ পার্সেন্ট ভোট পাবে। আসন পাবে ৬০টা। আমাদের আসন এর চেয়ে অনেক বাড়বে।’

এর জন্য সরকারকে বর্তমান নির্বাচনপদ্ধতির পরিবর্তনে বাধ্য করতে হবে বলে মন্তব্য করেন এরশাদ। তিনি বলেন, নির্বাচনপদ্ধতির পরিবর্তন করা গেলে দুটি দলের (আওয়ামী লীগ ও বিএনপি) ক্ষমতার মিউজিক্যাল চেয়ার বন্ধ হবে। তখন মানুষ প্রার্থীকে নয়, দলকে ভোট দেবে। এ সময় এরশাদ নির্বাচনে মোট ভোটের আনুপাতিক হার অনুযায়ী আসন বন্টন পদ্ধতির একটি রূপরেখা তুলে ধরেন।

জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান বলেন, ‘দেখা যায় কোনো আসনে একজন প্রার্থী ৯০ হাজার ভোট পেল, আরেকজন ৯২ হাজার ভোট পেয়ে নির্বাচিত হয়ে গেল। এর ফলে ৯০ হাজার ভোট বৃথা গেল। যদি ভোটের আনুপাতিক হার অনুযায়ী আসন নির্ধারিত হয়, তাহলে একটি ভোটও নষ্ট হবে না।’ তিনি বলেন, কোনো দল যদি গড়ে ২০ পার্সেন্ট ভোট পায়, সে দল ৬০টা আসন পাবে। ৩০ পার্সেন্ট ভোট পেলে ৯০টা, আর ৪০ পার্সেন্ট ভোট পেলে ১২০টা আসন পাবে। নির্বাচন পদ্ধতির এ পরিবর্তন ছাড়া দুই দলের মিউজিক্যাল চেয়ার বন্ধ হবে না।
জাতীয় যুবসংহতির আহ্বায়ক আলমগীর সিকদারের সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় আরও বক্তব্য দেন জাপার মহাসচিব এ বি এম রুহুল আমিন হাওলাদার, দলের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য ও বাণিজ্যমন্ত্রী জি এম কাদের প্রমুখ।


আরোও সংবাদ