১২ টি দেশের গবেষকগণের অংশগ্রহনে চুয়েটে আর্ন্তজাতিক কনফারেন্স সমাপ্ত

প্রকাশ:| রবিবার, ২৮ ডিসেম্বর , ২০১৪ সময় ১১:৪৫ অপরাহ্ণ

শফিউল আলম, রাউজান ঃচট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (চুয়েট)-এর সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের উদ্যোগে 2nd International Conference on Advances in Civil Engineering (ICACE 2014) শীর্ষক তিনদিনব্যাপী আর্ন্তজাতিক কনফারেন্স গত ২৮ ডিসেম্বর, রবিবার সমাপ্ত হয়েছে। কনফারেন্সে বাংলাদেশসহ ১২ টি দেশের গবেষক-বিজ্ঞানীগণের ১৯টিসহ মোট ১৬৩টি প্রবন্ধ উপস্থাপিত হয়। এছাড়া এই প্রানবন্ত কনফারেন্সে ৪টি কবু ঘড়ঃব সেশন এবং ২৪টি টেকনিক্যাল সেশন ছিল।

পুরকৌশল বিভাগের সেমিনার কক্ষে আয়োজিত কনফারেন্সের সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন চুয়েটের ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মো: জাহাঙ্গীর আলম। বিশেষ অতিথি ছিলেন চুয়েটের প্রো-ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর মোহাম্মদ রফিকুল আলম, সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং অনুষদের ডীন প্রফেসর ড. স্বপন কুমার পালিত। সভাপতিত্ব করেন কনফারেন্স চেয়ারম্যান এবং সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রধান প্রফেসর ড. মো: রবিউল আলম।
১২ টি দেশের গবেষকগণের অংশগ্রহনে চুয়েটে আর্ন্তজাতিক কনফারেন্স সমাপ্ত
প্রধান অতিথির বক্তব্যে চুয়েটের ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. মো: জাহাঙ্গীর আলম বলেন, অত্যন্ত আশার কথা এই যে, এ ধরনের কনফারেন্সের মাধ্যমে একাডেমিশিয়ান এবং ইঞ্জিনিয়ারগণের গ্যাপ ক্রমেই কমে আসছে। এই আর্ন্তজাতিক কনফারেন্সে কেবল তত্ত্বীয় নয় ব্যবহারিক দিকও বেশ গুরুত্ব পেয়েছে। যার প্রয়োগিকতায় সমাজ ও দেশ উপকৃত হবে। এখানে বিশেষ করে, তরুন ও প্রতিভাবান বিজ্ঞানী-গবেষকগণের অনেক মূল্যবান ও সময়োপযোগী প্রবন্ধ ছিল। এ ধরনের কনফারেন্স দ্বিতীয়বারের মত সার্থকভাবে আয়োজন করে চুয়েটের সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগ নিজেদের অগ্রযাত্রা ও গৌরবকে অনন্য মাত্রায় তুলে ধরেছে। আগামী ২০১৬ সালে অনুষ্ঠিতব্য এ বিভাগের ৩য় আর্ন্তজাতিক কনফারেন্সও সফল হবে বলে আমি আশাবাদী।
বিশেষ অতিথি চুয়েটের প্রো-ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর মোহাম্মদ রফিকুল আলম বলেন, কনফারেন্সে জাপান, ভারতসহ বিভিন্ন দেশের গবেষক-বিজ্ঞানীগণ গুরুত্বপর্ণূ প্রবন্ধ উপস্থাপন করেছেন। এ কনফারেন্স শুরুর দিন থেকেই অত্যন্ত প্রানবন্ত ছিল। দ্বিতীয়বারের মত এ ধরনের কনফারেন্স সফলভাবে আয়োজনের জন্য আমি চুয়েটের সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগ সংশ্লিষ্ট সকলকে ধন্যবাদ জানাচ্ছি।
সমাপনী অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন কনফারেন্সের সায়িন্টিফিক এন্ড টেকনিক্যাল কমিটির মেম্বার সেক্রেটারি ড. রিয়াজ আক্তার মল্লিক। আরো বক্তব্য রাখেন ভারতের ঝঢ়ড়হংড়ৎবফ জবংবধৎপয ধহফ ওহফঁংঃৎরধষ ঈড়হংঁষঃধহপু এর অফারংড়ৎ চৎড়ভ. উৎ. ইৎধল ইযঁংযধহ চধহফবু. বুয়েটের সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রফেসর ড. মো: মাজহারুল হক, কঝজগ ঝঃববষ চষধহঃং-এর প্রতিনিধি জনাব মিজানুর রহমান। অনুষ্ঠান সঞ্চালনায় ছিলেন সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের সহকারী অধ্যাপক গং, ফারাজানা রহমান জুঁথী এবং প্রভাষক জনাব রিফাত আহমেদ ভূইয়াঁ।

কনফারেন্সের স্পন্সর হিসেবে ছিল ঈড়হভরফবহপব ঈবসবহঃ, কঝজগ ঝঃববষ চষধহঃং. সহযোগী হিসেবে ছিল ঞযব ওহংঃরঃঁঃরড়হ ড়ভ ঊহমরহববৎং, ইধহমষধফবংয এবং ইধহমষধফবংয মৎড়ঁঢ় ড়ভ ওঅইঝঊ.