হেফাজতীরা আফগান,পাকিস্তান ষ্টাইলে নারীর অধিকার হনন করতে চায়

প্রকাশ:| শনিবার, ২৪ আগস্ট , ২০১৩ সময় ০৮:৫৫ অপরাহ্ণ

hathazari 24.8তালেবানের বাংলাদেশী সংস্করণ হেফাজতীরা আফগানিস্তান ও পাকিস্তানের ষ্টাইলে নারী শিক্ষা, নারীর মর্যাদা ও অধিকার বিপন্ন করতে চাই। শনিবার (২৪ আগষ্ট) হাটহাজারী আনোয়ারুল উলুম নোমানিয়া মাদ্রাসা ময়দানে হাটহাজারী আহলে সুন্নাত ওয়াল জামাআত’র কর্মী সম্মেলনে বক্তারা একথা বলেন।

তারা বলেন,ঢাকাসহ সমগ্র দেশে হেফাজতী তান্ডবের প্রত্যেক দু®কৃতিকারীদের ভিডিও ফুটেজ দেখে আসামী গ্রেফতারের ঘোষণা দিয়ে সরকার তাদের দায়িত্ব শেষ করেছেন। এখন ভিতরে ভিতরে হেফাজতী জঙ্গীদের সাথে সখ্যতা নবায়নের কাজ চলছে। অথচ আমাদের কর্মী শহীদ মুহাম্মদ সাইফুল ইসলামের হত্যাকারী ১৩ জন সুনির্দিষ্ট আসামী করে মামলা দায়ের করা হলেও প্রশাসন এখনো কাউকে গ্রেফতার না করায় সচেতন মহলে এ সন্দেহ আরো ঘনিভূত হয়েছে। বক্তাগণ আরো বলেন- তেতুল শফি ও হেফাজতী জঙ্গীরা মূলত নারী বিদ্বেষী। ওরা ইসলামের দেওয়া নারীর অধিকার ও মর্যাদাকে অস্বীকার করেছে। ইসলামের মৌলিক আক্বিদার সাথে তাদের যে সাংঘর্ষিক অবস্থান তা জাতির কাছে স্পষ্ট হয়ে ওঠেছে। তালেবানের বাংলাদেশী সংস্করণ হেফাজতীরা আফগানিস্তান ও পাকিস্তানের ষ্টাইলে নারী শিক্ষা, নারীর মর্যাদা ও অধিকার বিপন্ন করতে চাই। তাই নারী নিন্দুক, ইসলামের মূলধারা বিচ্যুত এ হেফাজতী অশুভ শক্তির বিরুদ্ধে দেশবাসী, সরকার ও আলেম সমাজকে সোচ্চার হতে হবে।

বক্তারা দুই নেত্রীকে উদ্দেশ্য করে বলেন-অবিলম্বে সংলাপে বসে দেশকে স্থিতিশীল করুন এবং ভবিষ্যতে বিরোধী দলে গেলেও হরতার ও লাগাতার সংসদ বর্জন না করার অঙ্গিকার করুন। আর এ ঘোষণা নির্বাচনী ইশতিহারে অন্তভূক্ত না করলে এ দেশে সংখ্যাগরিষ্ট সুন্নি জনতা শুধুমাত্র গদি নির্ভর রাজনীতির ধারক বাহকদের আগামী নির্বাচনে বর্জনের জন্য সর্বাত্মক কাজ করে যাবে। নেতৃবৃন্দ বলেন, দেশে আজ যেভাবে শিশুকিশোর অপরাধীদের সংখ্যা বাড়ছে তা হতাশাজনক। সঠিক ধর্মীয় শিক্ষার অভাবে আজকের প্রজন্ম কেউ নাস্তিক, কেউ জঙ্গী, আবার কেউ মাদকাসক্ত সন্ত্রাসী হয়ে যাচ্ছে। তাই প্রত্যেকটি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে যথাযথ ইসলামী জ্ঞান দিতে সক্ষম ফাযিল/কামিল পাশ ধর্মীয় শিক্ষক নিয়োগ প্রদানের দাবী বাস্তবায়ন করতে হবে। শুধু তথ্যপ্রযুক্তি অপব্যবহারের মাধ্যমে অপরাধ সংঘঠনের শাস্তি বাড়ালে চলবে না বরং একই সাথে নবী অবমাননার সর্বোচ্চ শাস্তির বিলও পাশ করতে হবে।

হাটহাজারী উপজেলা আহলে সুন্নাত’র সভাপতি আলহাজ্ব মৌলানা মীর হাসানুল করিম সভাপতিত্বে ও সম্মেলন প্রস্তুতি কমিটির সদস্য সচিব মোহাম্মদ সাকুর মিয়ার সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত বিশাল কর্মী সম্মেলন ও ঈদ পুনর্মিলনীতে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন- বিশিষ্ট ইসলামী চিন্তাবিদ, গবেষক ও লিখক, পীরে তরিক্বত, রাহনুমায়ে শরীয়ত অধ্যক্ষ আল্লামা আজিজুল হক আলক্বাদেরী (মাঃজিঃআঃ)। উদ্বোধক হিসাবে উপস্থিত ছিলেন- প্রবীন আলেমেদ্বীন অধ্যক্ষ আল্লামা সৈয়দ নুুরুল মনোয়ার (মাঃজিঃআঃ)। বিশেষ অতিথি হিসাবে উপস্থিত থেকে গুরুত্বপূর্ণ বক্তব্য রাখেন- জামেয়া আহমদীয়া সুন্নিয়া আলীয়ার প্রধান ফকিহ আল্লামা মুফতী সৈয়দ অছিয়র রহমান আলকাদেরী,চট্টগ্রাম সোবাহানিয়া আলীয়া মাদ্রাসার প্রধান মুহাদ্দিস আল্লামা কাজী মঈনুদ্দিন আশরাফী, চট্টগ্রাম জামেয়া আহমদীয়া সুন্নিয়া আলিয়ার মুহাদ্দিস আল্লামা হাফেজ আশরাফুজ্জামান আলক্বাদেরী, মোজাহেদে মিল্লাত আল্লামা আবুল কাশেম নুরী, আহলে সুন্নাত কেন্দ্রীয় সমন্বয় কমিটির সদস্য অধ্যক্ষ আবুল ফরাহ মুহাম্মদ ফরিদ উদ্দীন, ছিপাতলী আলিয়া মাদ্রাসার উপাধ্যক্ষ আল্লামা এম.এ অদুদ, ছিপাতলী আলিয়া মাদ্রাসার প্রধান মুফাচ্ছির আল্লামা শফিউল আলম নেজামী, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় আরবী বিভাগের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. এস,এম রফিকুল আলম, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সাবেক সাধারণ সম্পাদক অধ্যাপক আলী আজগর চৌধুরী, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মোহাম্মদ বখতিয়ার উদ্দিন, আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের সহকারী অধ্যাপক রেজাউল করিম, সামুদ্রিক বিজ্ঞান বিভাগের সহকারী অধ্যাপক শহিদুল ইসলাম শাহীন, যোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক নিয়াজ মোরশেদ রিপন, ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মীর সাইফুদ্দিন খালেদ চৌধুরী, লালিয়ারহাট সিনিয়র মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মৌলানা তৈয়ব আলী, হাটহাজারী নোমানিয়া মাদ্রাসার অধ্যক্ষ আল্লামা নুরুল আলম খাঁন, কাটিরহাট ফাজিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মোহাম্মদ আবুল কালাম, লাঙ্গল সামশুল উলুম ফাজিল মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মৌলানা ছালে আহমদ আনসারী, মির্জাপুর গাউছিয়া বাকেরীয়া মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মৌলানা বদিউল আলম জিহাদী, উপাধ্যক্ষ মৌলানা কামরুল আহসান, উপাধ্যক্ষ মৌলানা জসিম উদ্দিন আলক্বাদেরী, বাংলাদেশ ইসলামী ফ্রন্ট হাটহাজারী উপজেলার সভাপতি উপাধ্যক্ষ মৌলানা সৈয়দ নুরুল আমিন, ফতেপুর এম.আই. সিনিয়র মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মুফতী শাহ আলম, বিশিষ্ট ব্যাংকার মৌলানা হাসানুল করিম চৌধুরী, বিশিষ্ট ব্যাংকার মোহাম্মদ ফজলুল করিম তালূকদার, বিশিষ্ট ব্যাংকার মোহাম্মদ ইউসুফ, বিশিষ্ট ব্যাংকার আবু তৈয়ব চৌধুরী সুমন, আলহাজ্ব মুছা চৌধুরী, আলহাজ্ব মুহাম্মদ হারুন, এডভোকেট সৈয়দ মোহাম্মদ শাহ জামান, অধ্যাপক মোহাম্মদ গিয়াস উদ্দিন, মাওলানা জামাল উদ্দিন আলকাদেরী, মাওলানা সৈয়দ মুহাম্মদ আবদুর রউফ, অধ্যাপক শেখ মোহাম্মদ খোরশেদুল আলম, অধ্যাপক আবু ছালেহ, আলহাজ্ব মোহাম্মদ হারুন, সৈয়দ মোহাম্মদ মুনিরুর রহমান, সৈয়দ মোঃ আবু আজম, মোঃ এনামুল হক সিদ্দিকী, বাংলাদেশ ইসলামী ছাত্রসেনা হাটহাজারী উপজেলা সভাপতি মোহাম্মদ অছি উদ্দিন, সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ ফরিদুল আলম, সাংগঠনিক সম্পাদক মোহাম্মদ সরওয়ার উদ্দিন চৌধুরী প্রমুখ।