স্বেচ্ছাসেবকলীগের মিছিল থেকে বিএনপি কার্যালয়ে ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ

প্রকাশ:| বৃহস্পতিবার, ৫ মার্চ , ২০১৫ সময় ১০:১২ অপরাহ্ণ

স্বেচ্ছাসেবকলীগের মিছিল থেকে বগুড়া জেলা বিএনপি কার্যালয়ে হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ করা হয়েছে। এর প্রতিবাদে রোববার থেকে জেলায় ৪৮ ঘন্টা ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ ভাঙচুর ও অগ্নিসংযোগ1হরতাল ডেকেছে বিএনপি।

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার পর শহরের নবাববাড়ী সড়কে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনার পর শহরে উত্তেজনা ছড়িয়ে পড়ে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, বৃহস্পতিবার বিকেলে শহরের সাতমাথায় স্বেচ্ছাসেবকলীগের উদ্যোগে একটি বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশ থেকে নেতাকর্মীরা চলে যাওয়ার পর সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার পর স্বেচ্ছাসেবকলীগ ও ছাত্রলীগের একদল নেতাকর্মী বিক্ষোভ মিছিল বের করে। মিছিলটি শহরের নবাববাড়ী সড়ক অতিক্রম করার সময় মিছিল থেকে জেলা বিএনপি কার্যালয়ে হামলা চালায়। তারা কার্যালয়ের কলাপসিবল গেট ভেঙে ভেতরে প্রবেশ করে। এরপর কার্যালয়ের তালা ভেঙে চেয়ার টেবিলসহ অন্যান্য আসবাবপত্র ভাঙচুর করে আগুন ধরিয়ে দেয়।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গেলে তারা পালিয়ে যায়। পরে ফায়ার সার্ভিস কর্মীরা গিয়ে আগুন নেভায়। পরে বিএনপি অফিসের সামনে পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। জেলা বিএনপি কার্যালয়ে হামলা ও অগ্নিসংযোগের খবর ছড়িয়ে পড়লে বিএনপি নেতাকর্মীদের মাঝে উত্তেজনা বিরাজ করছে।

Bogra-05-03-151সদর পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ (টিএসআই) মঞ্জুরুল হক ভুঞা বাংলামেইলকে জানান, একদল দুর্বৃত্ত জেলা বিএনপি অফিসের গেট ভেঙে আসবাবপত্র ভাঙচুর করেছে। পুলিশ ঘটনাস্থলে যাওয়ার আগেই তারা পালিয়ে গেছে। পুলিশ দুর্বৃত্তদের চিনতে পারেনি বলে তিনি জানান।

এ বিষয়ে জানতে স্বেচ্ছাসেবকলীগ শহর শাখার আহ্বায়ক শহিদুল ইসলাম বাপ্পীর মোবাইল ফোনে যোগাযোগের চেষ্টা করা হলে তার মোবাইল ফোন বন্ধ পাওয়া যায়। জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আল রাজী জুয়েল বলেছেন জেলা বিএনপি অফিসে আগুন দেয়ার সাথে ছাত্ররীগের কেউ জড়িত ছিলনা।

এদিকে জেলা বিএনপির সভাপতি ভিপি সাইফুল ইসলাম এ ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বাংলামেইলকেব বলেন, ‘সরকারদলীয় সন্ত্রাসীরা রাতের অন্ধকারে কাপুরুষের মতো দলীয় কার্যালয়ে হামলা চালিয়ে ভাঙচুর করেছে।’ তিনি ঘটনার সাথে জড়িতদের অবিলম্বে গ্রেপ্তার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে প্রশাসনের প্রতি দাবি জানিয়েছেন।

এ ঘটনার প্রতিবাদে শনিবার থানায় থানায় বিক্ষোভ এবং রোববার সকাল ৬টা থেকে মঙ্গলবার সকাল ৬টা পর্যন্ত জেলা ৪৮ ঘণ্টা হরতাল আহ্বান করেছে জেলা বিএনপি।

উল্লেখ্য, বুধবার রাতে শহরের ঝাউতলায় বগুড়া চেম্বার অব কমার্স ভবনে ২টি পেট্রোলবোমা হামলা করা হয়। এ সময় চেম্বার ভবনে ব্যক্তিগত অফিসে জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আলহাজ্ব মমতাজ উদ্দিন অবস্থান করছিলেন। এ ঘটনার পর আওয়ামীলীগ ও তার অঙ্গ সংগঠনের নেতাকর্মীদের মাঝে বৃহস্পতিবার দিনভর ক্ষোভ ও উত্তেজনা ছিল।