সীতাকুণ্ডে পাঁচ দিন পর স্কুলছাত্রী উদ্ধার

প্রকাশ:| শুক্রবার, ২৭ অক্টোবর , ২০১৭ সময় ০৯:১৩ অপরাহ্ণ

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডে নবম শ্রেণির এক ছাত্রীকে অপহরণের পাঁচ দিন পর উদ্ধার করেছে পুলিশ। তবে অপহরণকারী কাউকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি পুলিশ।

গতকাল বৃহস্পতিবার আসামিদের বিরুদ্ধে জবানবন্দি দিয়েছে ওই স্কুলছাত্রী।

থানা সূত্রে জানা গেছে, সীতাকুণ্ডে বাঁশবাড়িয়া ইউনিয়নের মধ্যম বাঁশবাড়িয়া সমাদারপাড়া গ্রামের নবম শ্রেণির ওই স্কুলছাত্রীকে দীর্ঘদিন ধরে উত্ত্যক্ত করে আসছিল একই গ্রামের মো. সোলেমানের বখাটে ছেলে আশরাফ উদ্দিন রিফাত (২০)। এ ঘটনায় গত বছরের ১৬ মার্চ রিফাতের বিরুদ্ধে মেয়ের স্কুলে লিখিত অভিযোগ করেন তার বাবা। সে সময় স্কুল কর্তৃপক্ষ রিফাতকে ডেকে ভবিষ্যতে আর কখনো উত্ত্যক্ত না করতে সতর্কও করে দেয়। কিন্তু কোনো কঠিন সাজার মুখোমুখি হতে না হওয়ায় রিফাত আবারও ওই ছাত্রীকে উত্ত্যক্ত করতে শুরু করে। মেয়েটি বারবার এর প্রতিবাদ করেও কোনো সুফল পায়নি।

সর্বশেষ গত ২০ অক্টোবর বিকেল ৩টার দিকে ওই স্কুলছাত্রীকে পরিকল্পিতভাবে মাইক্রোবাসযোগে অপহরণ করে নিয়ে যায় রিফাত ও তার দলবল।

সীতাকুণ্ড থানার এসআই সুজয় কুমার মজুমদার বলেন, এ ঘটনায় মেয়েটির বাবা পরদিনই সীতাকুণ্ড থানায় সাধারণ ডায়েরি করেন। পরে ২৩ অক্টোবর থানায় অপহরণের মামলা দায়ের করেন।

মামলায় রিফাত, তার বাবা, মাসহ চারজনকে আসামি করা হয়।

এ মামলার সূত্র ধরে গত বুধবার বিকেলে গোপন সূত্রের খবরে পুলিশ ভাটিয়ারীতে অপহরণকারীদের একটি আস্তানায় অভিযান চালায়। কিন্তু অপহরণকারীরা পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে ছাত্রীটিকে ফেলে পালিয়ে যায়।

গতকাল বৃহস্পতিবার ছাত্রীটিকে চট্টগ্রামের আদালতে হাজির করা হলে সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কোহিনুর আক্তারের আদালতে সে অপহরণের ঘটনা বর্ণনা দিয়ে ২২ ধারায় জবানবন্দি দেয়। আদালত জবানবন্দি গ্রহণ করে তাকে মা-বাবার জিম্মায় ফেরত দেন। এসআই বলেন, শিগগিরই আসামিরা ধরা পড়বে।


আরোও সংবাদ