সাবমেরিনের গেট দিয়ে ঢুকতেই এলাহি কারবার

প্রকাশ:| মঙ্গলবার, ১ মার্চ , ২০১৬ সময় ১১:১০ অপরাহ্ণ

সাবমেরিনের গেট দিয়ে ঢুকতেই এলাহি কারবার। জাহাজের চাকা, সোনালি ঘণ্টা, অনুসন্ধানী লাইট তো আছেই। পাঁচ দেশের মজাদার সব ‘সাব’ পরিবেশনও করছেন নাবিকের সাদা পোশাক পরা কর্মীরা। বাড়তি আকর্ষণ হিসেবে আছে বিশ্বখ্যাত ক্রিকেটারদের জার্সি, অটোগ্রাফসহ ব্যাট ইত্যাদি দুর্লভ স্মারক প্রদর্শনী। সব মিলে অন্য রকম একটি উৎসব।

হোটেল দি পেনিনসুলা চিটাগাংয়ে শুরু হয়েছে ১৫ দিনব্যাপী সাবমেরিন উৎসব। মঙ্গলবার রাতে ফিতা কেটে আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন প্রধান অতিথি জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী আইয়ুব বাচ্চু।
সাবমেরিনের গেট দিয়ে ঢুকতেই এলাহি কারবার2

সাবমেরিনের গেট দিয়ে ঢুকতেই এলাহি কারবার
তিনি বলেন, ‘আমার কাছে অত্যন্ত ইন্টারেস্টিং মনে হয়েছে। আইডিয়াটা অদ্ভুত। বাংলাদেশ, ভারত, শ্রীলংকা, যুক্তরাষ্ট্র, ব্রিটিশ এ পাঁচ দেশের সাব দিয়ে প্লেট সাজানো হচ্ছে। চার-পাঁচজন মিলে দুটি প্লেট নিয়ে আড্ডাও হলো, পেটও ভরলো। পেনিনসুলা আমার অত্যন্ত প্রিয় একটি হোটেল। পৃথিবীর সব দেশে এ ধরনের সাব উৎসব হয়ে থাকে। উদ্যোক্তারা জানিয়েছেন, সাব উৎসবে বৈচিত্র্য আসছে। শিগগির যুক্ত হবে ইতালিয়ান সাব।’

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন শিল্পপতি জোহায়ের তাহেরআলী, পেনিনসুলার ব্যবস্থাপনা পরিচালক মোস্তাফা তাহসিন, মহাব্যবস্থাপক মুস্তাক লুহার প্রমুখ।

এক প্রশ্নের উত্তরে আইয়ুব বাচ্চু বলেন, ‘আমার জন্মশহর, প্রিয় শহর চট্টগ্রাম। আমার নাড়ি এখানে। আমার মাকে এখানে দাফন করা হয়েছে। এখন অন্য যেকোনো সময়ের চেয়ে শহর অনেক উন্নত হয়েছে। আশাকরি, দুই-চার বছরের মধ্যেই সত্যিকারের বন্দরনগরী হিসেবে পরিচ্ছন্ন একটি শহর হবে চট্টগ্রাম।’

পেনিনসুলার ব্যবস্থাপক (বিক্রয় ও বিপণন) মো. হাসানুল ইসলাম বাংলানিউজকে জানান, সাব হচ্ছে মূলত স্যান্ডউইচ, যা দেখতে সাবমেরিনের মতো। এবারের সাব উৎসবে বাংলাদেশের ঐতিহ্যবাহী বিফ মেজবানি ও বিফ কালাভুনা সাব, লোভনীয় ভারতীয় চিকেন তান্দুরি সাব, শ্রীলংকান মসলায় তৈরি সাব লংকা, ইউএসের বিখ্যাত মাছ টুনা দিয়ে তৈরি ইউএস মেরিন সাব এবং বিলাসবহুল ব্রিটিশ বুলডগ সাব থাকছে উৎসবে। ওয়েস্টার্ন ফুড হিসেবে উৎসবটি ওয়েস্টার্ন রেস্টুরেন্টে করা হচ্ছে। সকাল ১১টা থেকে রাত ১১টা পর্যন্ত উৎসব চলবে।

পেনিনসুলার সেলস অ্যান্ড মার্কেটিং বিভাগের কো-অর্ডিনেটর ফারিয়া তাহমিন জানান, পাঁচ দেশের ঐতিহ্যবাহী স্বাদের সাবমেরিনগুলো উপভোগ করা যাবে মাত্র ৭৭৭ টাকায়। এর সঙ্গে যোগ হবে সার্ভিস চার্জ ও ভ্যাট (প্লাস প্লাস)। উৎসবের আকর্ষণ হচ্ছে একটি সাবমেরিন কিনলে আরেকটি ফ্রি। প্রতিটি অর্ডারে ২টি চিজ কেক ও ২টি সফট ড্রিংকসও ফ্রি।

তিনি জানান, পিৎজা উৎসবে বিপুল সাড়া পাওয়ার পর হোটেলটি ভোজন প্রেমিকদের অনুরোধে সাব উৎসবের আয়োজন করেছে।

তিনি জানান, ১৪৪টি সুপরিসর রুম, ৩টি আন্তর্জাতিক মানের রেস্টুরেন্ট, ২টি ব্যাংকুইট হল, কনফারেন্স রুম, প্রাইভেট ডাইনিং, রুপটপ রেস্টুরেন্ট রয়েছে পেনিনসুলায়। হোটেলটি বিসিবি, এমএনসি, সিজেকেএস, এয়ারলাইন্সসহ চার শতাধিক করপোরেট প্রতিষ্ঠানকে সুনামের সঙ্গে সেবা দিচ্ছে। প্রতিবছর ভ্যালেন্টাইনস ডে, মাদার্স ডে, ওম্যানস ডে, করপোরেট নাইট, বড় দিন, হ্যালোইন ও থার্টি ফার্স্ট নাইটে আন্তর্জাতিক মানের হোটেলের মতো অনুষ্ঠান আয়োজন করছে।


আরোও সংবাদ