সাফারী পার্কের গেইট খোলা নিয়ে বন্দুক যুদ্ধে আহত ১০

নিউজচিটাগাং২৪/ এক্স প্রকাশ:| মঙ্গলবার, ১৯ জুন , ২০১৮ সময় ১১:১৪ অপরাহ্ণ

বি এম হাবিব উল্লাহ, চকরিয়া(কক্সবাজার)প্রতিনিধি:
কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার ডুলহাজারায় অবস্থিত বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব সাফারী পার্কে বন্ধের দিন পার্কের গেইট খোলা নিয়ে কর্তৃপক্ষ ও ইজারাদারদের মধ্যে গোলাগুলির ঘটনা ঘটেছে। এতে ১০জন কম বেশি আহত হয়েছে। পার্ক কতৃপক্ষ ¯ী^কার করেছে, তারা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনার জন্য ৩ রাউন্ড ফাঁকা গুলি বর্ষন করেছে। অপর দিকে সন্ত্রাসীরা ৭/৮ রাউন্ড গুলি বর্ষনের কথা জানান কর্তৃপক্ষ। পরে ঘটনাস্থলে চকরিয়া থানা পুলিশ ও পার্কে নিয়োজিত ট্যুরিষ্ট পুলিশ উপস্থিত হলে ঘটনা নিয়ন্ত্রনে আসে।
সপ্তাহের প্রতি মঙ্গলবার পার্কে অবস্থানরত পশুপাখিদের পরিবেশ প্রতিবেশ রক্ষার জন্য সরকারী ভাবে মঙ্গলবার পার্ক বন্ধের দিন ধার্য্য রয়েছে। কিন্তু দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে কয়েক হাজার দর্শনার্থী ঈদ পরবর্তী পার্কে ভ্রমনের জন্য বেড়াতে আসেন। তারা মঙ্গলবার বন্ধের দিন সম্পর্কে অবহিত নন। ইজারাদার কতৃপক্ষ জানান, ঈদ পরবর্তী বিশেষ দিনের জন্য দেশের দু’টি বঙ্গবন্ধু সাফারী পার্কের মধ্যে গাজীপুর বঙ্গবন্ধু সাফারী পার্ক খোলা থাকলেও ডুলহাজারা বঙ্গবন্ধু সাফারী পার্কটি বিভাগীয় বন কর্মকর্তার মৌখিক নির্দেশ থাকা স্বত্বেও রেইঞ্জ কর্মকর্তা গেইট খোলে না দেয়ায় দু’পক্ষের মধ্যে বাকবিতন্ডা ও গুলাগুলির ঘটনা ঘটেছে। বর্তমানে এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে পার্ক এলাকায় আতংক বিরাজ করছে। বিকেলে চকরিয়া পৌর বাস টার্মিনালস্থ মালিক সমিতির কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে পার্কের ইজারাদার মেসার্স শিমুল এন্টারপ্রাইজের মালিক মোহাম্মদ রফিক উদ্দিন একটি লিখিত অভিযোগে দাবী করেছেন, বন্ধের দিন গেইট খোলতে তার কাছ থেকে পার্কের দাায়ীত্বে নিয়োজিত থাকা রেইঞ্জ কর্মকর্তা ১ লাখ টাকা উৎকোচ দাবী করেন। উক্ত টাকা দিতে অপারগতা প্রকাশ করায় অনাকাঙ্খিত এ ঘটনা ঘটেছে বলে তিনি জানান। সৃষ্ঠ ঘটনায় দৌড় ঝাপে আহত কয়েকজনের মধ্যে নাছির উদ্দিন, সৈয়দ আলম, গোলাম মোর্শেদ সহ আরো অনেকেই রয়েছেন। এদিকে রেইঞ্জ কর্মকর্তা ঘটনার সাথে জড়িতদের বিরুদ্ধে থানায় মামলা দায়েররের প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে জানান।