সন্ত্রাসীদের হামলায় সাংবাদিক দম্পতি গুরুতর আহত

প্রকাশ:| সোমবার, ২৯ জুন , ২০১৫ সময় ১১:২৬ অপরাহ্ণ

দৈনিক নয়াদিগন্তের রূপগঞ্জ প্রতিনিধি শফিকুল আলম ভুইয়া ওরফে মামুনের উপর সোমবার দুপুরে আওয়ামী সন্ত্রাসীরা হামলা চালিয়েছে। এসময় তাকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে গুরুতর জখম সন্ত্রাসীদের হামলায় সাংবাদিক দম্পতি গুরুতর আহতকরে। প্রতিবাদ করায় তার স্ত্রীকেও আহত করে সন্ত্রাসীরা।

নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জ উপজেলার ভুলতা ইউনিয়নের মিঠাব এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলা তুলে নিতে রাজি না হওয়ায় এ হামলার ঘটনা ঘটানো হয়েছে।

সাংবাদিক শফিকুল আলম ভুইয়ার স্ত্রী ও মামলার বাদি শবনব মোস্তারিন জানান, জমি সংক্রান্ত বিরোধকে কেন্দ্র করে গত ৫ মাস পূর্বে পার্শবর্তী বাড়ির আওয়ামী সন্ত্রাসী শহিদুল ইসলাম অঞ্জন, রঞ্জন, আবুল কালাম সুমন, এবায়দুল ইসলাম কালু, সজিব, মিলি আক্তার, নাজমা বেগমসহ ১০ থেকে ১২ জনের এক দল সন্ত্রাসী শফিকুল আলম ভুইয়ার উপর হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর ও লুটপাট চালায়। ওই ঘটনায় রূপগঞ্জ থানায় একটি মামলা দায়ের করা হয়। আসামীরা জামিনে এসে ওই মামলা তুলে নিতে প্রায় প্রাণনাশের হুমকি দিয়ে আসছিল।

এ পর্যন্ত আসামীদের বিরুদ্ধে থানায় ৪টি সাধারণ ডায়েরীও করা হয়েছে।

সোমবার সকালে সর্ব শেষ সাধারণ ডায়েরীর তদন্ত করেন এএসআই জাহিদ। এর পরই আসামীরা ক্ষিপ্ত হয়ে উঠেন। পরে দুপুর দেড়টার দিকে উল্লেখিত আসামীরা রামদা, চাপাতিসহ ধারালো অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে শফিকুল আলম ভুইয়ার ঘরে প্রবেশ করে ফের মামলা তুলে নিতে বলে। এতে রাজি না হওয়ায় লীগ সন্ত্রাসীরা হামলা চালিয়ে ব্যাপক ভাংচুর ও লুটপাট চালায়। এক পর্যায়ে সন্ত্রাসীরা শফিকুল আলম ভুইয়াকে এলোপাতাড়িভাবে কুপিয়ে গুরুতর জখম করা হয়। প্রতিবাদ করায় তার স্ত্রীকেও পিটিয়ে আহত করা হয়। পরে তাদের ডাক চিৎকারে আশ-পাশের লোকজন ছুটে এসে তাদের উদ্ধার করে প্রথমে রূপগঞ্জ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। অবস্থার অবনতি দেখে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে।

এ দিকে সাংবাদিকের উপর হামলার নিন্দা জানিয়েছেন রূপগঞ্জ প্রেসক্লাবের সভাপতি লায়ন মীর আব্দুল আলীম, সাপ্তাহিক আমাদের রূপগঞ্জ পত্রিকার সম্পাদক মো. হানিফ মোল্লা। দ্রুত হামলাকারীদের গ্রেফতারেরও দাবি জানান তারা।

এ বিষয়ে রূপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাহমুদুল ইসলাম জানান, হামলার ঘটনার সংবাদ পেয়ে তাৎক্ষনিক ঘটনাস্থল পুলিশ পাঠানো হয়েছে। আসামীদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে।


আরোও সংবাদ