শিশুদের ব্যতিক্রমী প্রতিষ্ঠান আলোর ঠিকানার অনুষ্ঠান

প্রকাশ:| রবিবার, ২১ ফেব্রুয়ারি , ২০১৬ সময় ১০:২৮ অপরাহ্ণ

পুরাতন রেলস্টেশন এলাকায় সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের ব্যতিক্রমী প্রতিষ্ঠান আলোর ঠিকানার অনুষ্ঠানে জনপ্রিয় কণ্ঠশিল্পী কুমার বিশ্বজিৎ বলেছেন, আমি অর্থের পেছনে কখনো ছুটিনি। সমাজের সুবিধাবঞ্চিত মানুষের পাশে যারা দাঁড়ায় তাদের সঙ্গে থেকেছি। যতটা সম্ভব সহযোগিতা করেছি। চট্টগ্রামেও অনুরূপ উদ্যোগ নেওয়া হয় তবে আমি আসবো।

শিশুদের ব্যতিক্রমী প্রতিষ্ঠান আলোর ঠিকানার অনুষ্ঠানেআন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস ও মহান একুশে উপলক্ষে রোববার বিকালে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়।

গানের এ রাজকুমার বলেন, সমাজের সুবিধাবঞ্চিত শিশুদেরও শিক্ষার অধিকার আছে। ঋত্বিক নয়নের সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের স্কুলের বিষয়টি আমার হৃদয়কে স্পর্শ করেছে। সমাজের সবাই যখন ভোগবিলাসী, তখন সুবিধাবঞ্চিত শিশুদের জন্যে এ ধরনের কাজ করার ক’জন আছেন।

তিনি বলেন, ঋত্বিক নয়ন গান লিখেছেন আমার জন্যে। তাকে আমি চিনি। আমি তার লেখায় কাব্য, সাহিত্য ও অন্ত্যমিলে গভীরতা দেখতে পেয়েছি। তার লেখার দৃষ্টিভঙ্গি, ভিশন আলাদা।

মোহাম্মদ শাহ আলমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন নগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার একেএম শহীদুর রহমান। প্রধান বক্তা ছিলেন শ্রমিক নেতা মৃণাল চৌধুরী। বিশেষ অতিথি ছিলেন দৈনিক আজাদীর পরিচালনা সম্পাদক ওয়াহিদ মালেক, বার্তা সম্পাদক ও গীতিকবি একেএম জহুরুল ইসলাম, জুনিয়র চেম্বারের পরিচালক জসিম আহমেদ, আলকরণ ওয়ার্ডের কাউন্সিলর তারেক সোলেমান সেলিম, অ্যাডভোকেট অনুপম চক্রবর্তী প্রমুখ।

আলোর ঠিকানার পরিচালক ঋত্বিক নয়নের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন সিনিয়র সাংবাদিক শুকলাল দাশ, লতিফা আনছারী রুনা, আলোর ঠিকানার সংগঠক হুমায়ুন কবির মাসুদ, রেলওয়ে শ্রমিক লীগের নেতা সিরাজুল ইসলাম, সমাজসেবক আবু তাহের প্রমুখ।

সব শেষে আলো ঝলমলে নৃত্য পরিবেশন করে সুবিধাবঞ্চিত শিশু তানিয়া, তানহা, নাসরিন, মোমেনা, শারমিন, টুনটুনি, আফসা, ফাতেমা ও সোনিয়া।