শিবিরমুক্ত করতে ছাত্র আন্দোলনকে ১৪ দলের সংহতি

প্রকাশ:| শনিবার, ১৬ জানুয়ারি , ২০১৬ সময় ১০:২৮ অপরাহ্ণ

সংহতি

ঐতিহ্যবাহী সরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সরকারি মহসিন ও চট্টগ্রাম কলেজকে জঙ্গীবাদ ও স্বাধীনতা বিরোধী শিবিরমুক্ত করণে ছাত্রলীগ সহ প্রগতিশীল ছাত্র সংগঠনের চলমান সংগ্রামের কর্মসূচিকে সমর্থন জানিয়েছে চট্টগ্রাম বিভাগীয় ১৪ দল। আজ বিকেলে বিভাগীয় ১৪ দলের সমন্বয়ক ও চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব এ.বি.এম মহিউদ্দিন চৌধুরীর চশমা হিলস্থ বাসভবনে চট্টগ্রাম বিভাগীয় ১৪ দলের প্রতিনিধিমূলক এক সভায় সভাপতির ভাষণে এ.বি.এম মহিউদ্দিন চৌধুরী বলেন, প্রায় তিন যুগের মত এই দুটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে স্বাধীনতা বিরোধী শিবিরের নেতৃত্বাধীন জঙ্গীবাদীরা আস্তানা গড়ে তুলেছে। অত্যন্ত পরিতাপের বিষয় মুক্তিযুদ্ধে সপক্ষের শক্তি ক্ষমতায় থাকার পরও এই দুটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে স্বাধীনতা বিরোধী শক্তি তৎপর। আজ সাধারণ শিক্ষার্থীদের শুভ বুদ্ধি উদয় ঘটেছে। তাই তারা এই দুটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানকে শিবিরমুক্ত করণের সর্বাত্মক সংগ্রামে অবতীর্ণ হয়েছেন। আন্দোলনকারীদের সুস্পষ্ট অভিযোগ মহসিন ও চট্টগ্রাম কলেজের অধ্যক্ষ ও ৮ জন শিক্ষক সহ ৪০ জন কর্মকর্তা/কর্মচারী স্বাধীনতা বিরোধী শিবির ও জঙ্গীবাদীদের মদদ দিচ্ছেন। তাদের এই অভিযোগ যদি সত্য প্রমাণিত হয় তাহলে ১৪ দল আন্দোলনরত ছাত্র সমাজের পাশে থেকে সর্বাত্মক সহযোগিতা প্রদান করে যাবে। তিনি আরও বলেন, পুলিশ প্রশাসনের দ্বৈত ভূমিকা আমাদেরকে অবাক করে। তারা স্বাধীনতার পক্ষের শক্তি লেবাজ ধারণ করে তলে তলে এই দুটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে স্বাধীনতা বিরোধী জঙ্গীবাদ ও শিবিরকে আশ্রয়, প্রশ্রয় দিচ্ছে। আমরা তাদেরকে চিহ্নিত করেছি এবং সাবধান করে দিতে চাই তাদের বিরুদ্ধে দেশপ্রেমিক ছাত্র জনগণের যে আন্দোলন সূচিত হবে তাতে তাদের কেউ রক্ষা করতে পারবে না। এতে আরোও বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম জেলা ন্যাপের সাধারণ সম্পাদক এড. আলী আহমদ নাজির, চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব বদিউল আলম, মহানগর জাসদের সাধারণ সম্পাদক জসিম উদ্দিন বাবুল, মুক্তিযোদ্ধা মো: ইউনুস, ওয়ার্কাস পার্টির জেলা সাধারণ সম্পাদক শামসুদ্দিন খালেদ সেলিম, মহানগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক শফিক আদনান, সাম্যবাদী দলের অমূল্য বড়ুয়া, মহানগর আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী সদস্য অমল মিত্র, ন্যাপের যুগ্ম সম্পাদক মিটুল দাশগুপ্ত, ওয়ার্কাস পার্টির মোক্তার আহমেদ, ত্বরিকত ফেডারেশনের কাজী আহসানুল মোরশেদ কাদেরী, কোতোয়ালী থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব ফিরোজ আহমেদ, আনোয়ার হোসেন, সাবেক ছাত্রনেতা এম .আর. আজিম, মো: সালাউদ্দিন, সাবেক যুবনেতা অধ্যাপক রানা বিশ্বাস, ছাত্রলীগ নেতা আজিজুর রহমান আজিজ, মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি ইমরান আহমেদ ইমু, সাধারণ সম্পাদক নুরুল আজিম রনি, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এইচ এম ফজলে রাব্বি সুজন প্রমুখ।