লিচু খেলে

নিউজচিটাগাং২৪/ এক্স প্রকাশ:| বুধবার, ২০ জুন , ২০১৮ সময় ০৬:৪৩ অপরাহ্ণ

রোগ-প্রতিরোধের ক্ষমতা বৃদ্ধি
লিচুতে আছে প্রচুর ভিটামিন সি। রক্তের শ্বেত রক্তকণিকার কার্যক্রম ত্বরান্বিত করতে ভিটামিন সি অন্যতম অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট। লিচু খেলে আপনার রোগ-প্রতিরোধ ক্ষমতা শক্তিশালী হয়ে উঠবে। এছাড়া গরমের সময় দেহে যেসব রোগের আশঙ্কা থাকে, সেসব প্রতিরোধেও লিচু কার্যকর।

পেটের জন্য উপকারি
লিচুতে আছে পর্যাপ্ত  ইবার। হজম হওয়া থেকে শুরু করে বর্জ্য অপসারণ পর্যন্ত পুরো প্রক্রিয়া মসৃণ করে এ ফলের ফাইবার। কাজেই কোষ্ঠকাঠিন্য দূর হয় অনায়াসে।

ক্যান্সার প্রতিরোধ
লিচুতে রয়েছে পলিফেনোলিক এবং প্রোঅ্যান্থোসায়ানিডিন্স উপাদান। এগুলো কিন্তু দেহের বিষাক্ত উপাদান সরাতে ভিটামিন সি-এর চেয়েও শক্তিশালী। এসব বিষাক্ত উপাদান দেহে ক্যান্সারের সৃষ্টি করে।

রক্তচাপ ও রক্তপ্রবাহে সহায়ক
লিচুতে রয়েছে কপার। আরেকটি খনিজ, যা রক্তপ্রবাহ স্বাভাবিক পর্যায়ে রাখে। এছাড়া পটাসিয়ামের এক আধার লিচু। অর্থাৎ, এ খনিজ দেহে তরলের ভারসাম্যপূর্ণ অবস্থা সামলাতে ভূমিকা রাখে। এটি শুধু সুষ্ঠু বিপাকক্রিয়ার জন্যই নয়, রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণেও কার্যকর।

খালি পেটে লিচু নয়

খালি পেটে লিচু খাওয়া যাবে না বলে চিকিৎসকরা সতর্ক করেছেন। এতে এমনকি শিশু মৃত্যুর কারণ হতে পারে। লিচুতে হাইপোগ্লাইসিন নামে একটি রাসায়নিক থাকে, যা শরীরে শর্করা তৈরি রোধ করে। খালি পেটে অতিরিক্ত লিচু খেয়ে ফেললে শিশুদের শরীরে শর্করার পরিমাণ অত্যন্ত কমে গিয়ে তা মৃত্যুর কারণ হয়ে দাঁড়ায়।

খালি পেটে অনেকগুলো লিচু খেয়ে ফেললে শরীরে যে বিষ তৈরি হয়, তার ফলে শিশুদের হঠাৎ খিঁচুনি আর বমি শুরু হয়। তারপরেই অজ্ঞান হয়ে পড়ে তারা। এভাবে বহু শিশুর মৃত্যু হয়েছে। এ কারণে শিশুকে খালিপেটে লিচু দেওয়া যাবে না।

ডায়াবেটিসে সাবধান
লিচুতে প্রচুর চিনি থাকায় যাদের ডায়াবেটিক রয়েছে তাদের হিসাব করেই খেতে হবে। তবে অল্প খেতে বাধা নেই।