লক্ষীছড়িতে জেএসএস-ইউপিডিএফের ঘণ্টাব্যাপী বন্দুকযুদ্ধ

প্রকাশ:| মঙ্গলবার, ১৬ জুলাই , ২০১৩ সময় ০৭:৪৫ অপরাহ্ণ

খাগড়াছড়ির লক্ষীছড়ি উপজেলার বর্মাছড়ি ইউনিয়নের কুতুকছড়ির লম্বাটিলা এলাকায় পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি বন্দুকযুদ্ধjpg(জেএসএস সন্তু) ও ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্টের (ইউপিডিএফ) মধ্যে বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটেছে। এতে একজন নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেলেও এর সত্যতা পাওয়া যায়নি।

মঙ্গলবার দুপুর ১টা ৪০ মিনিট থেকে প্রায় ঘণ্টাব্যাপী এ বন্দুকযুদ্ধ হয়।

নিরাপত্তা বাহিনী ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, দুপুর ১টা ৪০ মিনিট থেকে প্রায় ঘণ্টাব্যাপী বিবাদমান দুটি সংগঠন ইউপিডিএফ ও জেএসএসের মধ্যে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে প্রায় ৫০ রাউন্ড গুলিবিনিময় হয়।

গুইমারা রিজিয়নের জিএসওটু মেজর হাসান আরাফাত ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বাংলানিউজকে জানান, গোলাগুলির খবর নিশ্চিত হতে পারলেও নিহত হওয়ার সত্যতা এখনো নিশ্চিত হওয়া যায়নি। ঘটনাস্থলে সেনাবাহিনী রওনা দিয়েছে বলেও জানান তিনি।

লক্ষীছড়ি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কামরুল হাসান বাংলানিউজকে জানান, গোলাগুলির খবর শুনেছি। তবে ঘটনাস্থল দুর্গম হওয়ায় পুলিশ যাওয়া সম্ভব নয়।

পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির (জেএসএস সন্তু গ্রুপ) লক্ষীছড়ি উপজেলার সভাপতি ধীমান চাকমা বাংলানিউজকে জানান, এটি ইউপিডিএফের অভ্যন্তরীণ ঘটনা। এখানে জেএসএস জড়িত নয়। ঘটনায় এক ইউপিডিএফ কর্মী নিহত হয়েছেন বলেও জানান তিনি।

তবে এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত (বিকেল ৪.৫০মি) ইউপিডিএফের কোনো বক্তব্য পাওয়া যায়নি।