র‌্যাব-১২ সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে একজন নিহত

প্রকাশ:| বৃহস্পতিবার, ২৯ মে , ২০১৪ সময় ০৮:৩১ অপরাহ্ণ

পাবনার ঈশ্বরদী উপজেলার পাকশী হঠাৎপাড়া গ্রামে আজ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যা ৬টার দিকে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব-১২) সঙ্গে বন্দুকযুদ্ধে আবুল হামিদ ওরফে হানিফ (৩৫)নামে এক চরমপন্থী নেতা নিহত ও র‌্যাবের ৩ সদস্য আহত হয়েছেন।

ঘটনাস্থল থেকে একটি বিদেশি ৭.৬৫ বোরের পিস্তল এবং ২ রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়েছে।

আব্দুল হামিদ পাবনা সদর উপজেলার দাপুনিয়া গ্রামের মৃত দেলবরের ছেলে ও পুর্ব বাংলা কমিউনিস্ট পার্টি এমএল(লাল পতাকা)’র আশরাফ গ্রুপের দ্বিতীয় সর্বাধিনায়ক।

র‌্যাব-১২ এর কমান্ড্যান্ট জামিল আহমেদ জানান, একদল সশস্ত্র চরমপন্থী সন্ত্রাসী পদ্মা পাড়ের হঠাৎপাড়া গ্রামে একটি কলা বাগানে অস্ত্র বিক্রির জন্য অবস্থান করছে। এমন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-১২ পাবনা ক্যাম্পের সদস্যরা বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে সেখানে অভিযান চালায়।

এসময় র‌্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে সন্ত্রাসীরা র‌্যাবকে লক্ষ্য করে এলোপাতাড়ি গুলি ছুঁড়লে র‌্যাবও পাল্টা গুলি চালায়। প্রায় অধাঘণ্টা বন্দুকযুদ্ধ চলাকালে চরমপন্থী নেতা আবুল হামিদ গুলিবিদ্ধ হয়ে ঘটনাস্থলেই নিহত হন।

আহত হন র‌্যাবের ৩ সদস্য। এদের মধ্যে গুরুতর আহত অবস্থায় রানা ও মজিদুল নামে দুই সদস্যকে পাবনা জেনারেল হাসপাতাল থেকে বগুড়া ক্যান্টনমেন্ট হাসপাতালে স্থানান্তর করা হয়েছে।

এ প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত(সন্ধ্যা সাড়ে ৭টা) থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছিল।