রামগড়ে সন্ত্রাসী কার্যক্রম বন্ধের দাবিতে মানববন্ধন

নিউজচিটাগাং২৪/ এক্স প্রকাশ:| শনিবার, ২১ জুলাই , ২০১৮ সময় ০৮:২২ অপরাহ্ণ

পার্বত্য চট্টগ্রামে চাঁদাবাজি, খুন, অপহরণ, ধর্ষনসহ সন্ত্রাসী কার্যক্রম বন্ধে যৌথ অভিযান পরিচালনা, উপজাতীয় সন্ত্রাসীগোষ্ঠী কর্তৃক ইতোপূর্বে সংগঠিত সকল খুনের (সামরিক-বেসামরিক) বিচার, রামগড়ে উপজাতীয় সন্ত্রাসীগোষ্ঠী কর্তৃক বেদখলকৃত ভূমি দখলমুক্ত করা, পাহাড় থেকে অবৈধ অস্ত্র উদ্ধারে সাড়াশি অভিযান পরিচালনা, প্রত্যাহারকৃত সকল নিরাপত্তা বাহিনীর ক্যাম্প পুনঃ স্থাপন, ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অপরাজেয় বাংলার পাদদেশে পাহাড়ি আঞ্চলিক সশস্ত্র সন্ত্রাসী সংগঠন ইউপিডিএফ’র শাখা পিসিপি কর্তৃক নিরাপত্তাবাহিনী ও বাঙালি সম্প্রদায়কে নিয়ে মিথ্যা, বানোয়াট, উস্কানি ও ষড়যন্ত্রমূলক এবং ভিত্তিহীন অপপ্রচারের প্রতিবাদে শনিবার সকাল ১০টায় রামগড় বাজারের হাইপ্লাজা প্রাঙ্গণে ২ যুগেরও বেশি সময় ধরে পাহাড়ের নির্যাতিত পাহাড়ি-বাঙালি সম্প্রদায়ের অধিকার আদায়ে আপোষহীনভাবে আন্দোলন, সংগ্রামরত, বাঙালি অধিকার আদায়ের সর্ববৃহৎ ছাত্র সংগঠন পার্বত্য বাঙালি ছাত্রপরিষদ, রামগড় উপজেলা শাখার উদ্যেগে এক বিশাল মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

সংগঠনটির উপজেলা আহ্বায়ক মো. সাইফুল ইসলামের সঞ্চালনায় খাগড়াছড়ি জেলা শাখার সভাপতি প্রকৌশলী মো. লোকমান হোসেন-এর সভাপতিত্বে এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন, পার্বত্য বাঙালি ছাত্রপরিষদের প্রতিষ্ঠাতা ও পার্বত্য নাগরিক পরিষদের চেয়ারম্যান প্রকৌশলী আলকাছ আল মামুন ভুইয়া। প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন পার্বত্য বাঙালি ছাত্রপরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি এডভোকেট ইব্রাহিম মনির, বিশেষ অতিথি পার্বত্য বাঙালি ছাত্র পরিষদের কেন্দ্রীয় দপ্তর সম্পাদক ওমর ফারুক সুজন ও সোনাইআগা ভূমি রক্ষা কমিটির আহ্বায়ক মো. ইউনুছ ।

প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন, রাষ্ট্রীয় নিরাপত্তাবাহিনীকে নিয়ে অপপ্রচার করা আর রাষ্ট্রের বিরুদ্ধে অপপ্রচার করা একই কথা, পার্বত্যবাসী নিরাপত্তাবাহিনীকে নিয়ে যেকোনো ষড়যন্ত্র প্রতিহত করতে প্রস্তুত বলেও জানান তিনি।

এ সময় বক্তারা পাহাড়ে চলমান নৃশংস হত্যাকাণ্ড ও সাম্প্রতিক সময়ে অস্থিরতার তীব্র নিন্দা জানিয়ে অবিলম্বে এসব সন্ত্রাসী কার্যক্রম বন্ধে যৌথবাহিনী কর্তৃক অভিযান পরিচালনা করে অবৈধ অস্ত্র উদ্ধারের দাবি জানান।

এছাড়া রামগড়ের কালাডেবা-বাটনাশিবির এলাকায় উপজাতীয় সন্ত্রাসী গোষ্ঠী কর্তৃক বাঙালিদের ভূমি বেদখল করে বাড়ি-ঘর নির্মাণের তীব্র প্রতিবাদ এবং অবহিত করার পরেও প্রশাসনের নীরবতায় ক্ষোভ প্রকাশ করেন এবং প্রত্যাহারকৃত যৌথ বাহিনীর ক্যাম্প পুনঃ স্থাপন করার জন্য সরকারের প্রতি অনুরোধ জানান বক্তারা।


আরোও সংবাদ