রাঙ্গামাটি সংবাদ

প্রকাশ:| সোমবার, ২৮ অক্টোবর , ২০১৩ সময় ০৯:৩২ অপরাহ্ণ

কাউখালীতে পিকেটারদের হামলায় দু’পথযাত্রী আহত
কাউখালী-বিএনপির নেতৃত্বাধীন ১৮ দলীয় জোটের ডাকা ষাট ঘন্টার হরতালের দ্বিতীয় দিন গতকাল সোমবার কাউখালীতে ছাত্রদল পিকেটারদের হামলার শিকার হয়ে দু’পথযাত্রী আহত হয়েছে। সকাল ১১টায় কাউখালী-রানীহাট সড়কে এ ঘটনা ঘটে। আহত দু’পথযাত্রী হলেন মোঃ ইকবাল (২২), নুরুল ইসলাম (২০)। তারা দুজনই রাঙ্গুনীয়ার বহরাতল এলাকার বাসিন্দা। কাউখালী থানার অফিসার ইনচার্জ শ্যামল কান্তি বড়ুয়া ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেছেন রাঙ্গুনীয়ার বহরাতল এলাকায় ছাত্রদল কর্মীরা পিকেটিং করার সময় যুবলীগ কর্মী সন্দেহে তাদের উপর হামলা চালায়। এসময় পিকেটারদের আঘাতে তারা দু’জুন গুরুতর আহত হয়। পরে স্থানীয় লোকজন তাদেরকে উদ্ধার করে রাঙ্গামাটি জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে।
রানীরহাট সড়কে পিকেটিং এর কারনে কোন প্রকার যানবাহন চলাচল করেনী। সোমবার কাউখালী বাজারে সাপ্তাহিক হাটের দিন থাকলেও হরতালের কারনে হাট জমে উঠেনি। দুরপালার যানবাহন তো দূরের কথা স্থানীয় সড়ক গুলোতেও কোন যানবাহন চলাচল করেন। ফলে স্থানীয় জনসাধারণ চরম দূর্ভোগে পড়ে। তাছাড়া দোকান পাঠ অফিস খোলা থাকলেও উপস্থিতির হার ছিল কম। মাঝে মধ্যে পুলিশী ধাওয়ার মুখে পড়লেও ভোর থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত রাস্তা মূলত পিকেটারদের দখলে ছিল। প্রথম দিনের হরতালে পুলিশ পাহাড়ায় আওয়ামীলীগকে মাঠে সক্রিয় দেখা গেলেও দ্বিতীয় দিন কোন নেতাকর্মীকে মাঠে দেখা যায়নি।য়েছে।
অপরদিকে হরতালের দ্বিতীয় দিনে কাউখালীতে আওয়ামীলীগের হামলায় যুবদলের দু’কর্মী আহত হওয়ার ঘটনায় আওয়ামীলীগ ও অংগ সংগঠনের ২৯ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে কাউখালী থানায় মামলা করেছে আহত যুবদল কর্মীর পিতা। কাউখালী থানার অফিসার ইনচার্জ শ্যামল কান্তি বড়ুয়া মামলা হওয়ার সত্যতা স্বীকার করেছেন।
আহত যুবদল কর্মী আব্দুল আহাদের পিতা আমির হোসেন বাদী হয়ে কাউখালী শ্রমিকলীগ কর্মী বাহাদুর (২৩) কে প্রধান আসামী করে মোট ২৯ জন এবং অজ্ঞাত আরো ৩০/৪০ জনের নামে কাউখালী থানায় মামলা (নং-০৬,তাং ২৭/১০/২০১৩ইং ধারা-১৪৩/৩২৩/৩২৫/৩৭৯,দ.বি) দায়ের করেন। এ মামলায় কাউখালী উপজেলা যুবলীগের সাধারন সম্পাদক মোঃ নাজিম উদ্দিন, স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি মোঃ মাঈন উদ্দিন, কাউখালী উপজেলা আওয়ামীলীগের প্রচার সম্পাদক মোঃ আলাউদ্দিন ও আওয়ামীলীগ নেতা কাজী কাউচারকে আসামী করা হয়।
সা¤প্রতিক সময়ে আওয়ামীলীগ-বিএনপির সংঘর্ষের ঘটনায় কাউখালী থানায় এ পর্যন্ত পাচঁটি মামলা হয়েছে। মামলার কারণে কাউখালী উপজেলা সদরের আশোপাশের অনেক গ্রামের পুরুষরা গ্রেফতার আতংকে বাড়িঘর ছেড়ে অন্যত্র আশ্রয় নিয়েছে বলে জানাগেছে। –

কাপ্তাইয়ে ১৮ দলের ডাকা হরতাল রোববার ও সোমবার শান্তিপুর্নভাবে পালিত হয়েছে। মাঝে মাঝে কাপ্তাই-লিচুবাগান সড়কে দুয়েকটি অটোরিক্সা চলতে দেখা গেছে। রাস্তায় কয়েবস্থানে পিকেটারের উপস্থিতি লক্ষ্য করা গেছে। আ’লীগের নেতা-কর্মীগন অটোরিক্সা চালকদের গাড়ী চালাতে চাপ দিলেও তারা গাড়ী বের করেনি। বিকেলে হরতালের সমর্থনে একটি বিশাল মিছিল কাপ্তাই নতুন বাজার ও সড়ক প্রদনি করে। উপজেলার কোথাও কোন রকম অপ্রীতিকর ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি। দুরপালার কোন যানবাহন চলাচল করেনি। পায়ে হেটে লোকজনকে চলাচল করতে দেখা গেছে।


আরোও সংবাদ