রাউাজনে সড়ক দুর্ঘটনায় আহত একজন তিনদিন পর মারা গেছে

প্রকাশ:| মঙ্গলবার, ২৬ নভেম্বর , ২০১৩ সময় ১০:৫৭ অপরাহ্ণ

শফিউল আলম>>
রাউজাননে সড়ক দুর্ঘটনায় রাখাল দে (৬৫) নামের আহত ব্যক্তিটি তিনদিন পর মারা গতকাল মঙ্গলবার চমেক হাসপাতালে মারা গেছে। একই দিন রাঙ্গামাটি সড়কে কুন্ডেশরী এলাকায় রবিন (৭) নামের এক শিশু গাড়ির ধাক্কায় এক শিশু আহত হয়।
জানা যায়, উপজেলার বাগোয়ান ইউনিয়নের দুলাল মাস্টারের বাড়ীর বাসিন্ধা রাখাল রবিবার রাতে পাশ্চবর্তী রাঙ্গুনিয়ার শান্তির হাটে নিজ ব্যবসা প্রতিষ্টান থেকে বাড়ী ফেরার পথে কাপ্তাই সড়কের রাউজান তাপ বিদ্যুৎ কেন্দ্রে আসলে ব্যবসা প্রতিষ্টান থেকে মোবাইল নিয়ে না আসার বিষয়টি অবগত হন। এতে তিনি গাড়ি থেকে নেমে পড়ে ব্যবসা প্রতিষ্টানের দিকে পুনরায় যাওয়ার জন্য রাস্থা পাড় হচ্ছিল। এসময় দ্রুতগতিতে আসা একটি সিএনজি অটোরিক্্রা রাখালকে ধাক্কা দিলে তিনি গুরুতর আহত হয়। পরে স্থানীয়রা প্রথমে ইছাখালী হাসপাতাল ও পরে চমেক হাসপাতালে বেওয়ারিশ হিসেবে চিকিৎসাধি থাকা অবস্থায় গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে মারা গেছে। বাগোয়ন ইউপি চেয়ারম্যান ভূপেষ বড়–য়া ও এস.আই হাবিবুর রহমান জানান, আহত হওয়ার পর বেওয়ারীশ হিসেবে চিকিৎসাধিন থাকার পর গতকাল রাখালের পরিবারের সদস্যরা চমেক হাসপাতালে চিকিৎসাধিন থাকার বিষয়টি নিশ্চিত হলে সেখানে ছুটে যান। পরে তার মৃত্যু ঘটে। অন্যদিকে উপজেলা রাঙ্গামাটি সড়কের কু-েশ্বরী ঘাটায় গতকাল মঙ্গলবার সকালে রবিন (৭) নামের এক শিশু আহত হয়। তিনি উপজেলার রামজীবন নতুন চন্দ্র সিংহ প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ২য় শ্রেণীর ছাত্র।


আরোও সংবাদ