রাউজানে বোরো ধানের ব্যাপক ক্ষয় ক্ষতি

নিউজচিটাগাং২৪/ এক্স প্রকাশ:| মঙ্গলবার, ১০ এপ্রিল , ২০১৮ সময় ০৮:৫২ অপরাহ্ণ

শফিউল আলম,রাউজান ঃ রাউজানে বিভিন্ন এলাকায় বোরো ধানের ক্ষেতে রোগে আক্রান্ত ও ইদুরের উপদ্রব বৃদ্বি পাওয়ায় বোরো ধানের ব্যাপক ক্ষতি হচ্ছে । রাউজান উপজেলার ১৪টি ইউনিয়ন পৌর এলাকার ফসলী জমিতে শুস্ক মৌসুমে ৫ হাজার হেক্টর জমিতে বোরো ধানের চাষাবাদ করা হয়েছে । বোরো ধানের চারা রোপন করার পর কৃষকের বোরো ধানের চাষাবাদের জমিতে সার প্রয়োগ করে ও পরিচর্যা করে । বোরো ধানের চাষাবাদের জমিতে ধানের শীষ আসার পর বোরো ধান ইদুর কেটে ফেলায় অনেক কৃষক মাথায় হাত দিয়েছে । অপরদিকে ইদুরের উপদ্রব ছাড়া ও বোরো ধানের ক্ষেতে নেক বাস্ট, লিপ বাস্ট. সীথ বাস্ট রোগে আক্রান্ত হয়ে ধানের শীষ বের হওয়া ধান মরে যাচ্ছে । এই রোগ থেকে রক্ষা বোরো ধানের ক্ষেতকে রক্ষা করতে কৃষকেরা জমিতে কীটনাশক ঔষধ ব্যাবহার করে কোন সুফল পাচ্ছেনা বলে অভিযোগ করে এলাকার কৃষকেরা । রাউজান পৌরসভার ৮ নং ওয়ার্ডের হাজী পাড়া এলাকার কৃষক ওয়াহিদুল আলম জানান, হাজী পাড়া এলাকায় খাসখালী খালের সেচ পাম্প বসিয়ে সেচের মাধ্যমে ৪০ একর জমিতে বোরো ধানের চাষাবাদ করে এলাকার কৃষকেরা । হাজী পাড়া এলাকায় ফসলী জমিতে বোরো ধান শীষ বের হওয়ার পর থেকে রোগে আক্রান্ত হয়ে ধানের চারা মরে যাচ্ছে । কৃষক ওয়াহিদুল আলম জানান তার ২ একর জমির ধানের শীষ আসা বোরো ধান রোগে আক্রান্ত মরে গেছে । একই ভাবে রোগে আক্রন্ত হয়ে কৃষক খোশাল উদ্দিনের ৯ একর, কৃষক মাহাবুল আলমের এক একর, শাহাজাদা মামুনের ৬ একর ৪০ শতক, কৃষক গিয়াসের ১০ একর, কৃষক আকবরের এক একর বোরো ধানের ক্ষেতে রোগে আক্রান্ত হয়ে শীষ বের হওয়া ধান মরে যাচ্ছে । সরেজমিনে পরিদর্শন কালে রোগে আক্রান্ত হওয়া ধানের কয়েকটি চারা নিয়ে গতকাল ১০ এপ্রিল মঙ্গলবার বিকালে কৃষক ওয়াহিদুল আলমকে নিয়ে রাউজান উপজেলা কৃষি অফিসে গেলে রাউজান উপজেলা উপ সহকারী কৃষি কর্মকর্তা সনজিব কুমার সুশীল মরো যাওয়া বোরো ধানের চারা দেখেন । রাউজান উপজেলা উপ সহকারী কৃষি কর্মকর্তা সনজিব কুমার সুশীল মরো যাওয়া বোরো ধানের চারা দেখে বোরো ধানের চারা নেক বাস্ট, লিপ বাস্ট. সীথ বাস্ট রোগে আক্রান্ত হয়ে রোগে আক্রান্ত হয়েছে বলে জানান । এই রোগ জমিতে অতিরিক্ত ইউরিয়া সার প্রয়োগ ও গোমট আবহাওয়ার কারনে সৃষ্টি হয় । কৃষক ওয়াহিদুল আলমকে রোগে আক্রান্ত বোরো ধানের ক্ষেতে স্প্রে করে দেওয়ার জন্য ঔষধ নিখে দেয় উপজেলা উপ সহকারী কৃষি কর্মকর্তা সনজিব কুমার সুশীল । সরেজমিনে পরিদর্শন কালে এলাকার কৃষকের সাথে কথা বলে জানা গেছে রাউজানের বিভিন্ন এলাকায় বোরো ধানের ক্ষেতে রোগে আক্রান্ত হয়ে বোরো ধান মরে যাচ্ছে। রোগ থেকে রক্ষা করতে কীটনাশক প্রয়োগ করার পর রোগ থেকে রক্ষা পাচ্ছেনা বোরো ধান । অপরদিকে ইদুরের উপদ্রব বৃদ্বি পাওয়ায় ফসলী জমির বোরো ধান ইদুর কেটে ফেলছে । ইদুর নিধনের জন্য এলাকার কৃষকেরা ফাদঁ বসিয়ে ও কীটনাশক ব্যবহার করে ও ইদুর দমন করতে পারছেনা বলে দক্ষিন হিংগলার কৃষক আসালম ও জাফর জানান ।


আরোও সংবাদ