রাউজানে আত্নাহত্যা করেছে ২জন

প্রকাশ:| মঙ্গলবার, ১৩ জানুয়ারি , ২০১৫ সময় ০৭:৫৪ অপরাহ্ণ

নিজস্ব প্রতিনিধি, রাউজান:: unnamedরাউজানের নোয়াজিষপুর ও ডাবুয়ায় পৃথক আত্মহত্যার ঘটনা
গলায় ফাঁস লাগিয়ে গৃহকর্তা ও গৃবধূর মৃত্যু

রাউজানের নোয়াজিষপুর ও ডাবুয়া ইউনিয়নে দুটি পৃথক ঘটনায় মোহাম্মদ ইউছুপ (৬৭) নামের এক গৃহকর্তা ও নাছরিন সুলতানা (২৪) নামের গৃহবধূসহ দুইজন গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করেছে। গতকাল মঙ্গলবার ভোরে ও দুপুরে এই পৃথক ঘটনা ঘটে। আত্মহত্যাকারী মোহাম্মদ ইউছুপ নোয়াজিষপুর নতুনহাটের পাশের হায়দার আলী চৌধুরী বাড়ীর বাসিন্দা। তার ২ মেয়ে ১ ছেলে বড় মেয়ে বিবাহিত এবং ছোট মেয়ে দশর শ্রেণীতে পড়ে। স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গতকাল মঙ্গলবার ভোরে নতুন হাটের পশ্চিম গৃহকর্তা নিজ ঘরে গলায় ফাঁস লাগিয়ে আত্মহত্যা করে। তার ভাই ফারুক সওদাগর বলেন ‘সোমবার রাতে সবাই ঘুমিয়ে পড়ি। ফারুকের স্ত্রী রুমে গিয়ে ফজরের নাস্তা করার জন্য খোঁজ করলে তিনি দেখতে পায় রুম খালি। পরে মাঝ রুমে গাছের সিঁড়ির উপরে গলায় ফাঁস লাগিয়ে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখে চিৎকার করে। পরে স্থানীয় ওয়ার্ড মেম্বার মুছা সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে আসে চেয়ারম্যান ও থানা পুলিশকে ফোনে খবর দেন। এ প্রসঙ্গে নোয়াজিষপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান সরোয়ার্দী সিকদার বলেন ‘আমি খবর পেয়ে দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌছায় এবং দেখতে পায় সিড়ি উপর ফাঁস লাগিয়ে ঝুলন্ত অবস্থায় এবং ঘটনা সত্য। তার পরিবারের আর্থিক অবস্থা ছিল অসচ্ছল এবং সেই অসুস্থ ছিল। আত্মগহননকারীর স্ত্রী জানান, নিহত ফারুক শরীরিকভাবে অসুস্থ ও প্যারালাইসেস এর রোগী স্বাভাবিক ভাবে চলা ফেরা করতে পারতো না।
এদিকে উপজেলার ডাবুয়া ইয়াছিন শাহ মাজার সংলগ্ন খয়রাতি পাড়ায় গতকাল মঙ্গলবার বিকেলে গলায় শাড়ি পেছিয়ে ফাস লাগিয়ে নাছরিন সুলতানা (২৪) নামে এক গৃহবরধূ আত্মহত্যা করেছে। তিনি একই এলাকার মোহাম্মদ ফরিদের স্ত্রী। তার দুই ছেলে সন্তান রয়েছে। এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, নাছরিন সুলতানা গতকাল মঙ্গলবার দুপুরের ভাত খেয়ে পরিবারের সদস্যদের অগোচরে ঘরের ছাদের বিমের সাথে শাড়ি পেছিয়ে আত্মহত্যা করে। পরে পরিবারের সদস্যরা দেখতে পেয়ে স্থানীয়দের খবর দিলে তারা এসে উদ্ধার করে। সে দীর্ঘদিন থেকে মানসিক ভারসাম্যহিন ছিল বলে স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে। বিষয়টি নিয়ে রাউজান থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) প্রদীপ কুমার দাশ বলেন, বিষয়টি নিয়ে এখনো স্পষ্ট কিছু বলা যাচ্ছে না। ঘটনাস্থলে ফোর্স পাঠানো হচ্ছে। আত্মহত্যাকারী নাছরিন উপজেলার পশ্চিম ডাবুয়ার গণিপাড়ার প্রবাসি ইদ্রিসের কন্যা।


আরোও সংবাদ