মিরসরাইয়ে বিমান বাহিনীর হেলিকপ্টারের জরুরী অবতরণ

প্রকাশ:| মঙ্গলবার, ২১ জুলাই , ২০১৫ সময় ০৯:২৩ অপরাহ্ণ

মিরসরাই সংবাদদাতা

Captureচট্টগ্রামের মিরসরাইয়ের দুর্গাপুর এলাকায় বাংলাদেশ বিমান বাহিনীর একটি হেলিকপ্টার যান্ত্রিক ত্রুটির কারনে ধানক্ষেতে জরুরী অবতরন করেছে। মঙ্গলবার (২১জুলাই) বিকেল সাড়ে চারটায় অবতরন করা হেলিকপ্টারটির পাইলট নিরাপদে রয়েছেন। দূর্ঘটনার একঘন্টা পরে ঢাকা থেকে বিমান বাহিনীর উদ্ধারকারী দল এসে পৌছোনোর পরে ত্রুুটি সারানোর কাজ শুরু হয়।

জানা গেছে, ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম যাওয়ার পথে মিরসরাইয়ের দুর্গাপুর ইউনিয়ন এলাকায় ত্রুটি দেখা দিলে বাহিনীর ৪১১ নম্বর হেলিকপ্টারটি দ্রুত জরুরি অবতরণ করে গ্রামের একটি ধানক্ষেতে। তবে এতে কোন ধরণের প্রাণহানির ঘটনা ঘটেনি। তবে কাদাপানিতে দেবে যায় কপ্টারের পেছনের অংশ। বিকাল সাড়ে ৫টায় বিমান বাহিনীর অপর একটি হেলিকপ্টার যোগে ঘটনাস্থলে পৌঁছায় বাহিনীর ইঞ্জিনিয়ার কোরের সদস্যরা। তারা দুর্ঘটনাকবলিত হেলিকপ্টারের যান্ত্রিক ত্রুটির সারার কাজ শুরু করেন। এছাড়া ঘটনার পরপরই মিরসরাই ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্টেশনের উদ্ধারকারী দল, জোরারগঞ্জ থানা পুলিশ ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছায়। সর্বশেষ মঙ্গলবার রাত ৮টা পর্যন্ত হেলিকপ্টারটি উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি।

স্থানীয়রা জানান, বিকাল সাড়ে ৪টায় ইউনিয়নের দুর্গাপুর গ্রাম হয়ে উত্তরদিক থেকে খুব নিচ দিয়ে হেলিকপ্টারটি যাচ্ছিল। হঠাৎ এটি গ্রামের মিলন মাষ্টারের বাড়ির সামনের একটি ধানক্ষেতে অবতরণ করে। অবতরণের পর হেলিকপ্টারটির পেছনের পাখাসহ একটি অংশ কাদাপানিতে দেবে যায়।

বিমান বাহিনীর উইং কমান্ডার ফরহাদ হোসেন জানান, ‘হেলিকপ্টারটিতে একজন ক্যাপ্টেন, কো-পাইলট ও একজন ফ্লাইট ইঞ্জিনিয়ার ছিলেন। ঢাকা থেকে চট্টগ্রাম যাওয়ার পথে দুর্গাপুর এলাকায় হঠাৎ অগ্নিকান্ডের সংকেত দিলে এটি দ্রুত অবতরণ করতে বাধ্য হন পাইলট।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় মিরসরাই ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স ষ্টেশনের ইনচার্জ কমল বড়–য়া জানান, ‘বিমান বাহিনী থেকে আমাদেরকে দুর্ঘটনার খবরটি জানানো হলে তাৎক্ষণিক ঘটনাস্থলে এসেছি। বিমান বাহিনীর ইঞ্জিনিয়ারিং কোরের সদস্যরা যান্ত্রিক ত্রুটি সারার কাজ করছেন। কবে নাগাদ উদ্ধার কাজ শেষ হবে তা কিছু বলা যাচ্ছে না।’