মালিক-চালকদের যৌথ সাধারণ সভায়

নিউজচিটাগাং২৪/ এক্স প্রকাশ:| বুধবার, ৯ মে , ২০১৮ সময় ০৮:১৩ অপরাহ্ণ

বন্দরনগরী চট্টগ্রাম সিএনজি থ্রি হুইলার বেবীট্যাকসি মালিক সমিতি ২৩২২এর  উদ্যোগে অনুষ্ঠিত মালিক-চালকদের যৌথ সাধারণ সভায় মালিক সমিতির সভাপতি নুরুল হুদা বাচ্চু বলেছেন, রি ম্যাক্সিমা ও এইচ পাওয়ার গাড়ী ক্রয় করে যাদের জীবন চলতো তারা আজ অসহায়, মানবেতর জীবন যাপন করছে। সরকারী নিয়ম কানুন মেনে গাড়ী গুলো ক্রয় করলেও সরকার এখন এই গাড়ী গুলো চালাতে দিচ্ছে না। এই গাড়ী গুলোর মালিক ও চালকরা অনেকটা বেকার হয়ে পড়েছে। তাদের জীবন অবসানের পথে। এমতাবস্থায় পুলিশ প্রশাসন যদি উদ্যোগে নিয়ে এই গাড়ী গুলো চলাচলের ব্যবস্থা না করে তাহলে অনেক মালিক ও শ্রমিক আত্মহননের পথ বেচে নিতে পারে।
তিনি আরো বলেন, শুধু মাত্র একটি মামলা অযুহাত দেখিয়ে নগরীর সড়ক গুলোতে ম্যাক্সিমা ও পাওয়ার টেম্পু গুলো পুলিশ চলতে দিচ্ছে না। অথচ এই গাড়ী গুলো সরকারই আমদানী করে আমাদের কাছে বিক্রি করেছে। তিনি বলেন, রমজানের পূর্বে রোড পারমিট প্রদান করে নগরীর সড়কগুলোতে চলাচলের ব্যবস্থা করুন অন্যতায় বেকার শ্রমিক ও মালিকরা রাজপথে নামতে বাধ্য হবে।
অদ্য ৯মে বুধবার বিকাল ৩টায় নয়াবাজার মাতৃভূমি কমিউনিটি সেন্টারে অনুষ্ঠিত যৌথ সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি উপরোক্ত কথা বলেন।
সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক ওয়াজি উল্লাহ’র সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত যৌথ সভায় বক্তব্য রাখেন মালিক সমিতির নেতা মো: সোলায়মান, মো: দেলোয়ার হোসাইন, মো: ইব্রাহীম, শফিকুল ইসলাম ও চালক হাবিবুর রহমান প্রমুখ।
অনুষ্ঠানে বন্দরনগরী চট্টগ্রাম সিএনজি থ্রি হুইলার বেবীট্যাকসি মালিক সমিতির তিনজন মালিক ম্যাক্সিমা ও পাওয়ার টেম্পো গুলোর রোড পারমিট প্রদানসহ নগরী অবাধ চলাচলের জন্য হাইকোর্টে রিট প্রদান কারী মুহাম্মদ কামাল ও মো: বেলালকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানানো হয়।
সভায় সাধারণ সম্পাদক ওয়াজি উল্লাহ বলেন, মালিক-চালকদের প্রাণের দাবী তাদের কষ্টার্জিত টাকায় ক্রয় করা গাড়ী গুলো যত্রতত্র ফেলে রেখে নষ্ট করে তাদেরকে পথের ভিকারী করবেন না। তাদের মুলধন রক্ষা করা সকলের নৈতিক দায়িত্ব। তিনি বলেন, ম্যাক্সিমা ও পাওয়ার টেম্পোগুলো সড়কে চলাচলের ব্যবস্থা করুন অন্যতায় আমরা কঠোর কর্মসূচী দিতে বাধ্য হবো।
সভায় পুলিশ প্রশাসন, জেলা প্রশাসন, মেট্টো আরটিএ ও বিআরটিএ সহ সংশ্লিষ্টদেরকে জরুরী ভিত্তিতে সিদ্ধান্ত নিয়ে অত্র গাড়ী গুলো চলাচলের ব্যবস্থা গ্রহনার্থে এক প্রস্তাব গৃহীত হয়।


আরোও সংবাদ