মার্কেটে দোকানের বকেয়া ভাড়া দাবি করায় মালিককে পিটিয়ে হত্যা

প্রকাশ:| বুধবার, ২৫ সেপ্টেম্বর , ২০১৩ সময় ১১:৪৬ অপরাহ্ণ

নিহত লাশ
হাটহাজারীতে উপজেলা সদরে ফেন্সি মার্কেটে দোকানের বকেয়া ভাড়া দাবি করায় জহুরুল আলম সওদাগর(৬৫) নামে এক মালিককে পিটিয়ে মেরেছে ভাড়াটিয়া । উপজেলা সদরে মঙ্গলবার (২৪ সেপ্টেম্বর) দিবাগত রাতে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে এরশাদ নামে এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ।
জানা যায়,বকেয়া ভাড়া দাবি করায় মঙ্গলবার রাতে তার উপর হামলা চালায় ভাড়াটিয়ারা। এরপর তাকে হাটহাজারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য নেয়া হলে সেখানেও তার উপর হামলা চালায়।
গুরুতর আহত হওয়ায় আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাকে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল হাসপাতালে পাঠানো হয়। চিকিৎসাধীন অবস্থায় বুধবার (২৫ সেপ্টেম্বর) দুপুরে তার মৃত্যু হয়।
নিহত জহুর আলম সওদাগরের ছেলে মো.সরওয়ার সাংবাদিকদের জানান, গত তিন বছর ধরে দোকানের ভাড়া বকেয়া। এ অবস্থায় ভাড়াটিয়া মঙ্গলবার দোকানের জিনিসপত্র নিয়ে চলে যাওয়ার সময় বাধা দেয় আমার বাবা। পরে আমার দুই ভাইও যোগ দেয়।
‘তাদের উপর অতর্কিতে হামলা করে দোকানের ভাড়াটিয়া। এসময় আমার বাবা গুরুতর আহত হয়। তাকে হাটহাজারী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যাওয়া হয়।
সরওয়ার আরো বলেন, হাসপাতালের জরুরি বিভাগে ডাক্তারদের বের করে দিয়ে আমার বাবাকে লাঠি দিয়ে বেদম পিটায়। আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাকে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে আনা হলে বুধবার দুপুরে তার মৃত্যু হয়।
এ ব্যাপাওে হাটহাজারী থানার অফিসার ইনচার্জ এ.কে.এম.লিয়াকত আলী জানান,ঘটনা সর্ম্পকে জেনেছি। তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা গ্রহন করব। হামলাকারীদের চিহ্নিত করার চেষ্টা চলছে। এ ঘটনায় মামলা দায়ের প্রস্তুতি চলছে বলেও জানান তিনি।