মানববন্ধন, বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা

প্রকাশ:| বৃহস্পতিবার, ১৮ জুলাই , ২০১৩ সময় ০৮:০০ অপরাহ্ণ

পরীক্ষা ক্ষেত্রে আগের নিয়ম চালুর দাবিতে চট্টগ্রামে মানববন্ধন, বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের ১২৩৪৫অধিভুক্ত বিভিন্ন কলেজের একটি বর্ষের শিক্ষার্থীরা।

বৃহস্পতিবার সকালে চট্টগ্রামের প্রেসক্লাবের সামনে নগরীর বিভিন্ন সরকারি-বেসরকারি কলেজের সম্মান শ্রেণির ২০১০-১১ সেশনের শিক্ষার্থীরা এসব কর্মসূচি পালন করেন।

আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীরা জানান, গত সোমবার জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে দেশের ২৪১টি কলেজের ২০১০-১১ সেশনের দুই লাখ ২২ হাজার ৬১৫ জন পরীক্ষার্থীর অনার্স পাঠ-১এর ফল প্রকাশিত হয়। সম্মিলিত গ্রেড পয়েন্ট (সিজিপিএ) ভিত্তিক নতুন পদ্ধতিতে এ ফল প্রকাশিত হওয়ায় চট্টগ্রামসহ দেশের বিভিন্ন কলেজের বেশির ভাগ শিক্ষার্থী উত্তীর্ণ হতে ব্যর্থ হয়েছেন। তাই তারা দ্বিতীয় বর্ষে ভর্তি হতে পারছেন না।

চট্টগ্রামের সরকারি সিটি কলেজের গণিত বিভাগের ২০১০-১১ সেশনের ছাত্র প্রণব চন্দ্র দাশ বাংলানিউজকে বলেন,‘নতুন পদ্ধতিতে প্রকাশিত ফলাফলে আমাদের সেশনে দেশের শতকরা ২৭ শতাংশ শিক্ষার্থী উত্তীর্ণ হয়েছেন।’

তিনি বলেন,‘জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে ২০০৯-১০ সেশন পর্যন্ত প্রথর্মবর্ষের কোন বিষয়ে ফেল করলেও দ্বিতীয় বর্ষে উত্তীর্ণ হওয়া যেতো। কিন্তু ২০১০-১১ সেশন থেকে সিজিপিএ ১ দশমিক ৭৫ পয়েণ্টের কম পেলে পরবর্তী বর্ষে ভর্তি হওয়া যায়না। এতে আমাদের শিক্ষাজীবন দীর্ঘসহ হতাশা বাড়ছে। তাই কর্তৃপক্ষের কাছে আগের নিয়ম বহালের দাবি জানাচ্ছি।’

কমার্স কলেজের হিসাব বিজ্ঞান বিভাগের একই বর্ষের ছাত্রী সুমাইয়া সুলতানা বলেন,‘আগে কোন বর্ষের পরীক্ষায় দুই-তিনটি পর্যন্ত বিষয়ে ফেল করলেও পরবর্তী বর্ষে ক্লাস করা যেতো। কিন্তু আমাদের এ সুযোগ দেয়া হচ্ছে না।’

এ বিষয়ে কর্তৃপক্ষ আগে তাদের অবহিত করেনি বলেও অভিযোগ করেন প্রথম বর্ষে অনুত্তীর্ণ এই ছাত্রী।

এদিকে মানববন্ধনে নগরীর চট্টগ্রাম কলেজ, সরকারি মহিলা কলেজ, ইসলামিয়া কলেজ, হাজী মুহম্মদ মহসীন কলেজ, সরকারি কমার্স কলেজ, ওমরগণি এমইএস কলেজসহ জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত বিভিন্ন কলেজের শিক্ষার্থীরাদের প্রতিনিধিরা বক্তব্য দেন।

বক্তারা নতুন নিয়মে প্রকাশিত ফলাফল বৈষম্যমূলক দাবি করে আগের পদ্ধতিতে পরীক্ষা গ্রহণের দাবি জানিয়েছেন।

আন্দোলনকারী শিক্ষার্থী সোহরাব হোসেন শিহাব জানান, একই দাবিতে তারা শুক্রবার সকালে পাবলিক লাইব্রেরির সামনে প্রতিবাদ সভা ও র‌্যালি করা হবে।

মানববন্ধন শেষে শিক্ষার্থীরা প্রেসক্লাবের সামনে থেকে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের করেন। মিছিলটি জামালখান সড়ক ও চেরাগি পাহাড় মোড় হয়ে ফের প্রেসক্লাবের সামনে গিয়ে গিয়ে শেষ হয়।