মাটিরাঙ্গায় অপহরনের তিন ঘন্টার মাথায় কিশোরী উদ্ধার

প্রকাশ:| সোমবার, ১৬ অক্টোবর , ২০১৭ সময় ০৮:৫৩ অপরাহ্ণ

খাগড়াছড়ি থেকে:
রোববার রাত ১০টার দিকে মাটিরাঙ্গার কামিনী মেম্বারপাড়া এলাকা থেকে তাকে উদ্ধার করা হয়। এসময় অপহরনের সাথে জড়িত চার অপহরনকারীকে আটক করেছে যৌথবাহিনী।

জানা গেছে, রোববার সন্ধ্যা পৌনে সাতটার দিকে রামগড় মাষ্টারপাড়ার বাসিন্দা নিবাই মারমার মেয়ে আথোই মারমা খাগড়াছড়ি থেকে রামগড়ে ফেরার পথে মাটিরাঙ্গার ১০নং এলাকায় যাত্রীবাহি বাস থেকে নামিয়ে তুলে নিয়ে যায় ইউপিডিএফ কর্মী বাবু ত্রিপুরার নেতৃত্বে চার অপহরকারী।

এসময় তার পাশে বসে থাকা আবদুস ছোবহান নামে এক যাত্রীকে মারধর করে। খবর পেয়ে সেনাবাহিনী ও পুলিশ মাটিরাঙ্গার কামিনী মেম্বারপাড়া এলাকার একটি ঘর থেকে তাকে উদ্ধার করে। এসময় অপহরনের সাথে জড়িত চার অপহরনকারীকে আটক করেছে যৌথবাহিনী।

আটককৃতরা হলো, খাগড়াছড়ির ভাইবোনছড়ার আনন্দি চাকমার ছেলে নিপন চাকমা (২০), খাগড়াছড়ি সদরের খাগড়াপুরের সুশীল ত্রিপুরার ছেলে কৃপায়ন ত্রিপুরা (২০), রাঙ্গমাটির বাঘাইছড়ির বটতলী এলাকার নমমী চন্দ্র চাকমার ছেলে সুনেল চাকমা (২৫) ও খাগড়াছড়ি সদরের খাগড়াপুরের রামেন্দ্র ত্রিপুরার ছেলে বাবু ত্রিপুরা (২৬)।

অপহরনের বর্ণনা দিয়ে আথোই মারমা জানায়, কোন কিছু না বলেই চার যুবক আমাকে বাস থেকে নামিয়ে একটি ত্রিপুরা পাড়ার দিকে নিয়ে যায়। সেখানে একটি বাড়িতে আমাকে আটকে রাখে। পরে সেখান থেকে সেনাবাহিনী ও পুলিশ আমাকেসহ চার অপহরনকারীকে নিয়ে আসে।

মাটিরাঙ্গা থানার অফিসার ইনচার্জ সৈয়দ মো: জাকির হোসেন ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জনপদ সংবাদকে বলেন, আটককৃতদের বিরুদ্ধে অপহরন মামলা দায়েরের করা হয়েছে, আটককৃতদের সকলেই আঞ্চলিক সংগঠন ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটিক ফ্রন্ট-ইউপিডিএফের কর্মী বলেও জানান তিনি।