ভারতে ইন্টারনেট ব্যান্ডউইথ রপ্তানি শুরু হচ্ছে

প্রকাশ:| সোমবার, ৩০ নভেম্বর , ২০১৫ সময় ১১:১৪ অপরাহ্ণ

আগামীকাল মঙ্গলবার থেকে ভারতে ইন্টারনেট ব্যান্ডউইথ রপ্তানি শুরু হচ্ছে। তবে এটা হবে পরীক্ষামূলকভাবে সঞ্চালন । ৭ ডিসেম্বর থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে রপ্তানি শুরু হবে। বাংলাদেশ সাবমেরিন কেবল কোম্পানির ব্যবস্থাপনা পরিচালক মনোয়ার হোসেন সোমবার বাংলামেইলকে এসব তথ্য জানান।

এর ফলে ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চলে ইন্টারনেট অনেকটাই সহজ লভ্য হবে। আগে এসব অঞ্চলের জন্য ইন্টারনেট সংযোগ মুম্বাই থেকে আনতে হত।

এর আগে ১৬ নভেম্বর বাংলাদেশের আখাউড়া ও ভারতের আগরতলা সীমান্তের জিরো পয়েন্টে এ দুই দেশের অপটিক্যাল ফাইবার সংযোগ স্থাপন করা হয়।

উল্লেখ্য, গত ৬ সেপ্টেম্বর থেকে ব্যান্ডউইথ রপ্তানির কথা থাকলেও ভারতের অংশে অপটিক্যাল ফাইবার স্থাপন সম্পন্ন না হওয়ায় নির্ধারিত সময়ে কার্যক্রম শুরু করা যায়নি ৷

সাবমেরিন ক্যাবলের অব্যবহৃত ব্যান্ডউইডথ ভারতে রপ্তানির বিষয়টি গত ২০ এপ্রিল মন্ত্রিসভায় অনুমোদিত হয়। এরপর ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর বাংলাদেশ সফরে গত ৬ জুন ব্যান্ডউইডথ রপ্তানির তিন বছর মেয়াদি  চুক্তি স্বাক্ষর হয়। বাংলাদেশ সাবমেরিন কেবল কোম্পানি লিমিটেডের (বিএসসিসিএল) এবং ভারত সঞ্চার নিগম লিমিটেড (বিএসএনএল) মধ্যে এই চুক্তি হয়।

চুক্তি অনুসারে ১০ জিবিপিএস (গিগাবাইট পার সেকেন্ড) ব্যান্ডউইডথ বাণিজ্যিক ভিত্তিতে ভারতে সরবরাহ করা হবে। এতে বছরে ৯ কোটি ৪২ লাখ টাকা আয় করবে বাংলাদেশ ৷ ভারত চাইলে ৪০ জিপিবিএস পর্যন্ত ব্যান্ডউইডথ রপ্তানি করা হবে।

বাংলাদেশের একমাত্র সাবমেরিন কেবল সি-মি-ইউ-৪ এর কক্সবাজার ল্যান্ডিং স্টেশন থেকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া ও আখাউড়া হয়ে আগরতলা দিয়ে এ ব্যান্ডউইথ রপ্তানি হবে।

বর্তমানে দেশে ২০০ জিবিপিএস ব্যান্ডউইথ রয়েছে। এর মধ্যে প্রায় ৩০ জিবিপিএস ব্যবহৃত হচ্ছে। আগামী বছর দ্বিতীয় সাবমেরিন ক্যাবলে ( সি-মি-ইউ-৫) সংযুক্ত হলে দেশে আর ১ হাজার ৩০০ জিবিপিএস ব্যান্ডউইড যোগ হবে।