বেশ কিছু অ্যাক্সেসরিজ ও ডিভাইস

নিউজচিটাগাং২৪/ এক্স প্রকাশ:| শনিবার, ১৩ জানুয়ারি , ২০১৮ সময় ০১:৫৩ পূর্বাহ্ণ

টেক শহর স্মার্টফোন ও ট্যাব এক্সপো ২০১৮-তে স্মার্টফোন ও ট্যাবলেটের পাশাপাশি বেশ কিছু অ্যাক্সেসরিজ ও ডিভাইসও পাওয়া যাচ্ছে।

এসব ডিভাইসের মধ্যে অন্যতম কিছু ডিভাইস চোখে পড়ার মতো। মেলায় বেশি নজর কাড়ছে এমন পাঁচ গ্যাজেট ও অ্যাক্সেসরিজের কথা জেনে নেওয়া যাক।

ডিটেলের চার্জার

একাধিক ডিভাইসে একসঙ্গে চার্জ দেয়ার প্রয়োজনীয়তা অসীম। বাজারে একাধিক আউটপুট সমৃদ্ধ চার্জার পাওয়া গেলেও সবগুলোই শুধুমাত্র সাধরণ ইউএসবি পোর্টে সেটি দেয় থাকে।চার্জারে টাইপ সি পোর্টের দেখা তেমন পাওয়া যায় না।

যাদের সকল প্রকার চার্জিং একটি চার্জার থেকেই প্রয়োজন তাদের জন্য ডিটেল নিয়ে এসেছে ফোর ইন ওয়ান চার্জার। এতে রয়েছে দুটি স্মার্ট আউটপুট, যা ৫ ভোল্ট ২ অ্যাম্প আউটপুট সমর্থন করে, একটি কোয়ালকম কুইক চার্জ ৩ সমর্থন করে ও একটি টাইপ সি পোর্টের মাধ্যমে পাওয়ার দিতে সক্ষম।

চার্জারটি টু-পিন অথবা থ্রি-পিন প্লাগের মাধ্যমে ব্যবহার করা যাবে। মূল্য ধরা হয়েছে ১৭০০ টাকা।

অ্যাকশন ক্যামেরা

ইউটিউব ও ফেইসবুকের যুগে সবাই চান তার বেড়ানোর সকল স্মৃতির ভিডিও ধরে রাখতে। অথচ ফোনের ক্যামেরা সকল ক্ষেত্রে ব্যবহার সম্ভব হয়ে ওঠে না। সেসব ভিডিও ধারণ করার জন্য অ্যাকশন ক্যামেরা খুবই কাজের।

মেলায় ডিএক্স গ্যাজেট নিয়ে এসেছে দুটি অ্যাকশন ক্যামেরা। একটি মিজা ফোরকে অন্যটি ই-লাইট ফোরকে। দুটি ক্যামেরাই ফোর-কে আল্ট‌্রা এইচডি রেজুলেশনে ভিডিও ধারণ করতে সক্ষম। দুটি ক্যামেরাই ফোনের সঙ্গে তারহীনভাবে সংযুক্ত হয়ে কাজ করে।

দুটি ক্যামেরাতেই রয়েছে ওয়াইড অ্যাঙ্গেল লেন্স, রয়েছে পানি নিরোধী কেইস ব্যবহারের সুযোগ। তবে ই-লাইট ক্যামেরার সঙ্গেই কেইস ও মাউন্ট দেয়া হচ্ছে, মিজা ক্যামেরাটির জন্য আলাদা করে সেটি কিনতে হবে। ই-লাইট ফোরকে ক্যামেরাটির মূল্য ধরা হয়েছে ১৫ হাজার টাকা ও মিজা ফোরকের মূল্য ১১ হাজার ৫০০ টাকা।

এয়ার পিউরিফায়ার

বায়ুদূষণ সকল শহরের জন্যই ভয়াবহ সমস্যা। শ্বাসকষ্ট, নিউমোনিয়া থেকে শুরু করে নানাবিধ সমস্যার কারণ বাতাসে থাকা অদৃশ্য ধুলিকণা, ধোঁয়া, কলকারখানার নানা প্রকার বর্জ্য। ঘরের বায়ু থেকে দূষণ দূর করার জন্য শাওমি এনেছে এয়ার পিউরিফায়ার। বেশ বড়সর ডিভাইসটি ঘণ্টায় ৫০০ মিটারকিউব বাতাস শোধন করতে সক্ষম। ওয়াই ফাইয়ের মাধ্যমে ফোনের সঙ্গে যুক্ত হয়ে বাতাসের মান সরাসরি দেখাতেও পারবে।

একটি মাঝারি রুমের জন্য একটি ডিভাইসই যথেষ্ট, তবে বড় হল রুমের জন্য একাধিক ডিভাইস প্রয়োজন। পাওয়া যাচ্ছে স্মার্টফোন ও ট্যাব এক্সপোতে শাওমির স্টলে। মূল্য ৩১ হাজার ৫০০ টাকা।

ক্যামেরাফোন ভিডিও স্ট্যাবিলাইজার গিম্বল

ফোনে ভিডিও করার মূল চ্যালেঞ্জ সেটি স্থির ভাবে ধরে রাখা ও দৃশ্যপট বদলানোর সময় স্মূথভাবে প্যান করা। দুটি কাজ করার জন্যই প্রয়োজন একটি স্ট্যাবিলাইজার, যাকে ক্যামেরার ভাষায় গিম্বল বলা হয়। সেলফি স্টিকের মত দেখতে ডিভাইসটিতে ফোন রেখে ব্ল‌ুটুথের মাধ্যমে সংযোগ করে গিম্বলটি চালু করে দিলেই সেটি নিজ থেকে ফোনকে স্টেবল রাখবে।

শুধু তাই নয়, শাটার বাটন ও ক্যামেরা ঘুরানোর জন্য জয়স্টিক দুটিই রয়েছে হ্যান্ডেলে। একটানা দুঘণ্টা এক চার্জে ব্যবহার করা যাবে। চীনা নির্মাতা ঝিউন এর স্মূথ কিউ মডেলের স্ট্যাবিলাইজারটি পাওয়া যাচ্ছে মেলার ডিএক্স গ্যাজেটের স্টলে। দাম ১৮ হাজার  টাকা।

ব্ল‌ুটুথ নিয়ন্ত্রিত মটোরাইজড ট্রাইপড

ফোনের সঙ্গে ট্রাইপড ব্যবহারের একটি বড় সমস্যা অ্যাঙ্গেল খুব নিখুঁতভাবে ঠিক করে দেয়া। ফোন ট্রাইপডে রেখেই ব্ল‌ুটুথ রিমোটের মাধ্যমে ফোনের অ্যাঙ্গেল ও প্যান বদলাতে এসেছে শাওমি ট্রাইপড। এর মাধ্যমে লং এক্সপোজারের ছবি তোলা হবে আরও সহজ, ভিডিও কল অথবা লাইভ ক্যাস্টের সময় প্যান ঝাঁকুনি ছাড়াই করা যাবে। তবে ট্রাইপডটির উচ্চতা কিছুটা কম, মূলত ডেস্কে ব্যবহারের জন্য তৈরি করা হয়েছে। মেলায় শাওমির স্টলে এক হাজার ৯৮০ টাকায় পাওয়া যাচ্ছে।