বিএসএফের গুলিতে ২ বাংলাদেশি নিহত

প্রকাশ:| বুধবার, ১২ জুন , ২০১৩ সময় ০৫:৫৫ পূর্বাহ্ণ

বেনাপোলের পুটখালী সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) গুলিতে দুই বাংলাদেশী গরু ব্যবসায়ী নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে আরও দুজন

নিহতরা হলেন, বেনাপোলের বারোপোতা শিবনাথপুর গ্রামের হাবিবুর রহমান হবি (৩০) বসতপুর কলোনির ফারুক হোসেন (২৫) ফারুককে গুরুতর আহত অবস্থায় যশোরে নেওয়ার পথে মারা যান

স্থানীয়রা জানায়, মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১২টার দিকে বেনাপোলের পুটখালী সীমান্তের চরেরমাঠ এলাকার ওপারে ভারতের আংরালি সীমান্ত দিয়ে গরু নিয়ে ফিরছিল বাংলাদেশি গরু ব্যবসায়ীরা। এসময় টহলরত বিএসএফ তাদের বাঁধা দিলে সেটা উপেক্ষা করে গরু ঢোকানোর চেষ্টা চালায় তারা

এসময় বিএসএফ গুলি চালালে চার বাংলাদেশি গরু ব্যবসায়ী গুলিবিদ্ধ হয়। এতে ঘটনাস্থলে নিহত হয় হবি এবং ফারুককে মাথায় গুলিবিদ্ধ অবস্থায় যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পর তার মৃত্যু হয়। গুলিবিদ্ধ অপর দুজনকে খুলনায় ভর্তি করা হয়েছে। তবে তাদের পরিচয় জানা যায়নি

বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) খুলনা ২৩ ব্যাটালিয়নের পুটখালী ক্যাম্প কমান্ডার সুবেদার সফিউদ্দিন জানান, বিএসএফ গুলির  শব্দ শুনে বিজিবি সদস্যরা পুটখালী চরেরমাঠ এলাকার যায়। সেখানে গিয়ে হতাহতের খবর জানা যায়

পুটখালী নম্বর ওয়ার্ডের মেম্বর লিয়াকত আলী জানান, বাংলাদেশি ব্যবসায়ীদেরকে গুরুতর আহত অবস্থায় রাত সাড়ে ১২টার দিকে যশোরে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। এদের মধ্যে ফারুক মাথায় হাবিব বুকে গুলিবিদ্ধ হন

বেনাপোল পোর্ট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিজানুর রহমান জানান, তারা সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে হতাহতের খবর শুনেছেন

২৩ বিজিবির কমান্ডিং অফিসার লে: কর্নেল তায়েফুল হক ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, “দুই বাংলাদেশী গরু ব্যবসায়ীদের নিহত হওয়ার ঘটনায় বিএসএফকে কড়া প্রতিবাদ জানিয়ে পত্র দেয়া হচ্ছে।

bsf_4802_0

বেনাপোলের পুটখালী সীমান্তে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) গুলিতে দুই বাংলাদেশী গরু ব্যবসায়ী নিহত হয়েছে। আহত হয়েছে আরও দু’জন। বিএসএফের গুলিতে ২ বাংলাদেশি নিহত

নিহতরা হলেন, বেনাপোলের বারোপোতা শিবনাথপুর গ্রামের হাবিবুর রহমান হবি (৩০) ও বসতপুর কলোনির ফারুক হোসেন (২৫)। ফারুককে গুরুতর আহত অবস্থায় যশোরে নেওয়ার পথে মারা যান।
স্থানীয়রা জানায়, মঙ্গলবার দিবাগত রাত ১২টার দিকে বেনাপোলের পুটখালী সীমান্তের চরেরমাঠ এলাকার ওপারে ভারতের আংরালি সীমান্ত দিয়ে গরু নিয়ে ফিরছিল বাংলাদেশি গরু ব্যবসায়ীরা। এসময় টহলরত বিএসএফ তাদের বাঁধা দিলে সেটা উপেক্ষা করে গরু ঢোকানোর চেষ্টা চালায় তারা।
এসময় বিএসএফ গুলি চালালে চার বাংলাদেশি গরু ব্যবসায়ী গুলিবিদ্ধ হয়। এতে ঘটনাস্থলে নিহত হয় হবি এবং ফারুককে মাথায় গুলিবিদ্ধ অবস্থায় যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়ার পর তার মৃত্যু হয়। গুলিবিদ্ধ অপর দু’জনকে খুলনায় ভর্তি করা হয়েছে। তবে তাদের পরিচয় জানা যায়নি।
বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) খুলনা ২৩ ব্যাটালিয়নের পুটখালী ক্যাম্প কমান্ডার সুবেদার সফিউদ্দিন জানান, বিএসএফ’র গুলির  শব্দ শুনে বিজিবি সদস্যরা পুটখালী চরেরমাঠ এলাকার যায়। সেখানে গিয়ে হতাহতের খবর জানা যায়।
পুটখালী ২ নম্বর ওয়ার্ডের মেম্বর লিয়াকত আলী জানান, বাংলাদেশি ব্যবসায়ীদেরকে গুরুতর আহত অবস্থায় রাত সাড়ে ১২টার দিকে যশোরে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। এদের মধ্যে ফারুক মাথায় ও হাবিব বুকে গুলিবিদ্ধ হন।
বেনাপোল পোর্ট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিজানুর রহমান জানান, তারা সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে হতাহতের খবর শুনেছেন।
২৩ বিজিবির কমান্ডিং অফিসার লে: কর্নেল তায়েফুল হক ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, “দুই বাংলাদেশী গরু ব্যবসায়ীদের নিহত হওয়ার ঘটনায় বিএসএফকে কড়া প্রতিবাদ জানিয়ে পত্র দেয়া হচ্ছে।”

– See more at: http://www.samakal.net/2013/06/12/5037#sthash.sBy4iZJ9.dpuf