বিএনপির নেতৃত্বে ফের জ্বালাও পোড়াওয়ের আশঙ্কা গণপূর্ত মন্ত্রীর

প্রকাশ:| শনিবার, ১২ ডিসেম্বর , ২০১৫ সময় ০৯:২২ অপরাহ্ণ

2015_12_12_20_28_34_ne8FIkHJ6RjO0zPeC1Tp38SlWq2Zm7_800xautoদেশে বিএনপির নেতৃত্বে আবারো জ্বালাও পোড়াও শুরু হওয়ার আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ও গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন।

মন্ত্রী বলেন, ‘জ্বালাও-পোড়াও রাজনীতি করে বিএনপি যে ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে, সেই ধারা থেকে তারা ফিরে আসুক সেটাই আমরা চাই। সন্ত্রাসীরা আবারও ঐক্যবদ্ধ হচ্ছে। খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে আবারও জ্বালাও-পোড়াও শুরু হতে পারে। তাই সবাইকে সজাগ থাকতে ’

শনিবার বিকেলে চট্টগ্রামের ডিসি হিলে ৮দিনব্যাপী মুক্তিযুদ্ধের বিজয় উৎসবের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এ আশঙ্কা প্রকাশ করেন।

আওয়ামী লীগের শীর্ষ এ নেতা আরো বলেন, ‘যুদ্ধাপরাধীদের বিচারের বিষয়ে নীরবতা পালনকারীদের জনগণ ভোট দেবে না। স্থানীয় সরকার নির্বাচনে বিএনপির অংশ নেওয়ার সিদ্ধান্ত প্রমাণ করে বর্তমান সরকারের অধীনে দেশের সুষ্ঠ নির্বাচন সম্ভব। তাই আসন্ন পৌরসভা নির্বাচনে স্বচ্ছ ব্যালট বাক্সে ভোটের মাধ্যমে দেওয়া দেশবাসীর ওই রায় দেখার অপেক্ষায় রয়েছে সরকার।’

বিজয় উৎসব উদযাপন পরিষদের চেয়ারম্যান সাবেক গণপরিষদ ও সংসদ সদস্য ইসহাক মিয়া বলেন, ‘সামরিক শাসকদের সঙ্গে মিটমাট করে গণতন্ত্র উদ্ধার হয় না। সামরিক শাসকদের মতো জঙ্গীবাদকেও উচ্ছেদ করলে গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠিত হবে। বাংলাদেশ হচ্ছে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির দেশ। অথচ কিছুদিন ধরে বাঙালির এই শাশ্বত জীবন-আদর্শ বা মূল্যবোধের উপর বারবার আঘাত করা হচ্ছে। একটি বিশেষ মহল সামাজিক শান্তি, সম্প্রীতি ও ধর্মীয় পারস্পরিক সহনশীলতা ও শ্রদ্ধাবোধ বিনষ্ট করে আমাদের সম্প্রীতি ধ্বংস করতে উদ্যত হয়েছে। মুক্তিযুদ্ধের আদর্শকে সামনে রেখে এ ব্যাপারে সকলকে সতর্ক হতে হবে।’

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন উদযাপন পরিষদের মহাসচিব চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের প্যানেল মেয়র চৌধুরী হাসান মাহমুদ হাসনী। শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন উদযাপন পরিষদের সমন্বয়কারী সংষ্কৃতিকর্মী খোরশেদ আলম, বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা সংসদ চট্টগ্রাম জেলা ইউনিট কমান্ডার মো. শাহাব উদ্দিন, মুক্তিযোদ্ধা ও সাংবাদিক বালাগাত উল্লাহ, চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামীলীগের স্বাস্থ্য বিষয়ক সম্পাদক ডা. ফয়সাল ইকবাল, কেন্দ্রীয় যুবলীগের সাবেক সদস্য রফিউল হায়দার রফি। এসময় উপস্থিত ছিলেন দৈনিক বীর চট্টগ্রাম মঞ্চের সম্পাদক সৈয়দ ওমর ফারুক, নগর আওয়ামীলীগের আলহাজ্ব সহ-সভাপতি, মুক্তিযোদ্ধা মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী, বীর মুক্তিযোদ্ধা নঈম উদ্দিন চৌধুরী, নগর আওয়ামীলীগের উপদেষ্টা আলহাজ্ব সফর আলী, শেখ মোহাম্মদ ইসহাক, সাংগঠনিক সম্পাদক নোমান আল মাহমুদ, মুুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার মুজাফফ্র আহমেদ, নগর জাতীয় শ্রমিকলীগ চট্টগ্রাম মহানগর সভাপতি বখতেয়ার উদ্দিন খান, সমাজসেবক হাজী মো. সাহাবউদ্দিন,  চসিক কাউন্সিলর  নাজমুল হক ডিউক, হাসান মুরাদ বিপ্লব, আবদুল কাদের, গোলাম মোহাম্মদ জুবায়ের, আবিদা আজাদ, জেসমিন পারভীন জেসি প্রমুখ।

আলোচনা সভার আগে জাতীয় সংগীত পরিবেশেনার মধ্য দিয়ে বেলুন ও পায়রা উড়িয়ে ৮ দিনব্যাপি মুক্তিযুদ্ধের বিজয় উৎসব অনুষ্ঠানের শুভ উদ্বোধন করেন গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের গৃহায়ন ও গণপূর্তমন্ত্রী ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন। শুরুতে উদ্বোধনী সংগীত পরিবেশন করেন নিবেদন শিল্পীগোষ্ঠী, পরিচালনায় রূপম মুৎসুদ্দি টিটো।

আলোচনা সভা শেষে দলীয় নৃত্য পরিবেশন করেন গুঙুর নৃতকলা কেন্দ্র, পরিচালনায় স্বপন দাশ, বৃন্দ আবৃত্তি পরিবেশন করেন প্রশা আবৃত্তি সংসদ, পরিচালনায় বাচিক শিল্পী রাশেদ হাসান, বিশেষ সংগীতানুষ্ঠানে সংগীত পরিবেশন করেন চট্টগ্রামের মরমী শিল্পী শিমুল শীল ও তার দল।