বাঙালিই পৃথিবীতে মাতৃভাষার অধিকারকে প্রতিষ্ঠিত করেছে

প্রকাশ:| বুধবার, ১৫ ফেব্রুয়ারি , ২০১৭ সময় ০৯:১২ অপরাহ্ণ

একুশ মেলা পরিষদের আলোচনা সভায় বক্তাগণ বলেছেন একুশে ফেব্রুয়ারিকে আমরা আজ আনুষ্ঠানিকতার মধ্যে আটকে রেখেছি। এই দিনটিতে তরুণ প্রজন্ম উৎসব করে, কিন্তু অনুভব করে না একুশের প্রবল শক্তিকে। ভাষা ও সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যে বাঙালি সবচেয়ে বেশি সমৃদ্ধ। এই সমৃদ্ধি বাঙালিকে আন্তনির্ভর করেছে। এ কারণেই বঙ্গবন্ধু কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বাঙালিকে গরীবী অপবাদ মুক্ত করেছে। পৃথিবীতে বাঙালিরাই ভাষার অধিকারকে প্রতিষ্ঠা করেছে রক্ত দিয়ে। এই অর্জনের মধ্য দিয়ে স্বাধীন বাঙালি জাতিসত্তার বিকাশ ঘটেছে। গতকাল বিকেলে নগরীর নজরুল স্কয়ার ডিসি হিল প্রাঙ্গনে একুশ মেলা পরিষদের উদ্যোগে ১০দিনব্যাপী বইমেলা দ্বিতীয় দিনের আলোচনা সভায় মেলা পরিষদের কো-চেয়ারম্যান কেন্দ্রীয় যুবলীগের সাবেক সদস্য আবদুল মান্নান ফেরদৌস এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় বক্তাগণ এ কথা বলেন। বক্তারা আরো বলেন ভাষা আন্দোলনের সূচনায় চট্টগ্রামের ছাত্র ও যুবকরা উদীপ্ত ভূমিকা পালন করেছিলেন। পরবর্তীতে তারাই বাঙালির মুক্তিসংগ্রামে নেতৃত্ব দিয়েছেন। বক্তারা দুঃখ প্রকাশ করে বলেন, বর্তমানে ছাত্র সমাজের সেই গর্বিত কৌলিন্য হারিয়ে গেছে। ছাত্রত্ব নেই, তারপরও তারা ছাত্র নেতৃত্বে আছেন। এতে সমাজ কলূষিত হচ্ছে। ফেসবুক ও মুঠোফোন জ্ঞানচর্চা মুঠোবন্দী হয়ে গেছে। তাই আজ সবকিছুই অন্তঃসার শূন্য হয়ে পড়েছে। একুশ মেলা পরিষদ চট্টগ্রামের যুগ্ম মহাসচিব সংস্কৃতিকর্মী খোরশেদ আলমের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়নের সভাপতি সাংবাদিক রিয়াজ হায়দার চৌধুরী। শুরুতে স্বাগত বক্তব্য রাখেন মেলা পরিষদের চেয়ারম্যান দৈনিক বীর চট্টগ্রাম মঞ্চের সম্পাদক সাংবাদিক সৈয়দ ওমর ফারুক। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক সাংবাদিক শুকলাল দাশ, সাংবাদিক ইউনিয়নের সহ সভাপতি সাংবাদিক নিরুপম দাশ গুপ্ত, সম্মিলিত আবৃত্তি জোট চট্টগ্রামের সভাপতি আবৃত্তিশিল্পী অঞ্চল চৌধুরী, নারী নেত্রী ও বঙ্গবন্ধু সাংস্কৃতিক জোট চট্টগ্রাম জেলার সহ সভাপতি ডা: সাহেলা আবেদীন রীমা, লায়ন দিদারুল আলম, তারুণ্য উচ্ছাস চট্টগ্রামের সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট মুজাহিদুল ইসলাম, নগর যুবলীগের সদস্য সুমন দেবনাথ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা জসিম উদ্দিন মিঠুন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন শ্রমিক নেতা কামাল উদ্দিন চৌধুরী, আওয়ামী লীগ নেতা মাস্টার কামাল উদ্দিন, আবু সুফিয়ান, যুবলীগ নেতা জাহাঙ্গীর আলম, এডভোকেট নজরুল ইসলাম, আলী আকবর, আরিফ মঈনুদ্দিন, সংষ্কৃতিকর্মী কবি সজল দাশ, অরুন ভদ্র, মুসলিম আলী জনি, বিপুল পাল, সাজু দাশ, মুজিবুর রহমান। অনুষ্ঠানের শুরুতেই দলীয় সঙ্গীত পরিবেশন করেন খায়ের মঞ্জিল দরবার শরীফ সঙ্গীত দল। দলীয় সঙ্গীত পরিবেশন করেন অনুশীলন সাংষ্কৃতিক কেন্দ্র। বিন্দ আবৃত্তি পরিবেশন করেন আবৃত্তি চর্চা কেন্দ্র। আজ বিকেলে একুশে মঞ্চে আলোচনা সভায় উপস্থিত থাকবেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য্য প্রফেসর ড. ইফতেখার উদ্দিন চৌধুরী। বরণ্য বুদ্ধিজীবি ও সাংবাদিক কবি অরুণ দাশগুপ্ত, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের প্যানেল মেয়র নিছার উদ্দিন আহমেদ মঞ্জু, অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করবেন চসিক কাউন্সিলর এইচ এম সোহেল।