বাঁশখালীর ইউএনওর বিরুদ্ধে মামলা

প্রকাশ:| মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর , ২০১৩ সময় ১০:৫২ অপরাহ্ণ

বাঁশখালী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাব্বির ইকবালের মাধ্যমে নির্যাতন এবং আর্থিক ক্ষতির স্বীকার হয়ে সিনিয়র সহকারি জজ আদালতে মামলা দায়ের করেছেন খানখানাবাদ ইউনিয়নের কদমরসুল গ্রামের মাস্টার ফরিদ আহমদ।

মামলায় দেওয়ানি কার্যবিধি আইনের ৩৯ অর্ডার ২(৩) রুল এবং ১৫১ ধারা মতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার বিরুদ্ধে শাস্তির প্রার্থনা করা হয়েছে।

মামলার আইনজীবি দিলীপ সুশীল জানান, মামলাটি গত ১৭ নভেম্বও আদালতে দাখিল করা হলেও কার্যক্রম শুরু হয়েছে মঙ্গলবার থেকে।

মামলার বাদি মাস্টার ফরিদ আহমদ বলেন, ‘উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাব্বির ইকবালের মামার বাড়ি বাঁশখালীর কদমরসুল গ্রামে। আমাদের বাড়িও সেখানে। তার মামা অজি আহমদ চৌধুরীর পক্ষ নিয়ে আমাদের বিরোধীয় সম্পত্তি তার মামাকে দখল করে দিতে গত ২৪ অক্টোবর আদালতে নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে আমাদের বাড়িরস্থাপনা ও ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত করে কবরস্থানের ৩৫০ ফুট দৈর্ঘ্য দেয়াল ভেঙ্গে দেয়। যাতে ২ লাখ টাকার ক্ষতিপূরণ করেছে।’

তিনি আরও বলেন, ‘এসবের প্রতিবাদ করলে ওই দিন রাতে পুলিশ দিয়ে তার কার্যালয়ে এনে ভ্রাম্যমান আদালত বসিয়ে নির্বাহী ম্যজিষ্টেটের ক্ষমতা বলে আমাকে ১১ (এগার) মাস জেল দেয়। আমি আপিল করে গত ৩১ অক্টোবর জামিনে বের হয়ে আসলে আমাকে আবারো গ্রেপ্তার করার হুমকি দিয়ে আসছে। এসব হয়রানি ও নির্যাতন থেকে রক্ষা পেতেই আমি আদালতের আশ্রয় নিয়েছি।’

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাব্বির বলেন, ‘আদালতে মামলা হয়েছে শুনেছি। তবে মামলাটি আইনের গতিতে চলবে। এতে আমার কিছু বলার নেই।’