বন্দরে বৈষম্যমূলক চার্জ প্রত্যাহারের দাবি

প্রকাশ:| শনিবার, ১০ মে , ২০১৪ সময় ১০:১৪ অপরাহ্ণ

বন্দরে বৈষম্যমূলক চার্জ প্রত্যাহারের দাবিচট্টগ্রাম বন্দরে নিউমুরিং কনটেইনার টার্মিনাল (এনসিটি) চালু করা, চুরি ঠেকাতে সিসিটিভি ক্যামেরা চালু রাখাসহ বৈষম্যমূলক চার্জ প্রত্যাহারের দাবি জানিয়েছে পোর্ট ইউজার্স ফোরাম।

শনিবার সন্ধ্যায় চট্টগ্রাম চেম্বার মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত ফোরামের সভায় এ দাবি জানানো হয়।

আমদানি পণ্যবাহী কন্টেইনার খালাসে অতিরিক্ত চার্জ আদায়জনিত সমস্যা নিরসনে এ সভার আয়োজন করা হয়। সভায় আমদানি-রপ্তানি কার্যক্রমের ব্যয় যৌক্তিক পর্যায়ে হ্রাসের লক্ষ্যে চেম্বারের নেতৃত্বে একটি কমিটি গঠন করারও প্রস্তাব করা হয়।

সভায় বক্তারা বলেন, ‘প্রতি বিল অব লেডিং (বিএল) এর বিপরীতে ডকুমেন্টেশন চার্জ ৫০০ টাকা ও তালিকাভূক্ত ১৩ পণ্যের ক্ষেত্রে প্রচলিত ৩০০ টাকা হারে ক্লিনিং চার্জ অব্যাহত রাখা প্রয়োজন। পাশাপাশি প্রয়োজনে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলাপের ভিত্তিতে নতুন পণ্য ক্লিনিং চার্জভূক্ত করা যেতে পারে।’

সভায় আমদানিকারকদের ব্যয় হ্রাসে কমন ল্যান্ডিং থেকে ফ্রি টাইমের মধ্যে পণ্য খালাসের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে সংশ্লিষ্ট সকলপক্ষকে কার্যকর ভূমিকা পালনের অনুরোধ জানানো হয়।

সভায় পোর্ট ইউজার্স ফোরাম চেয়ারম্যান মাহবুবুল আলম বলেন, ‘অবিলম্বে এনসিটি চালু করতে হবে। এটি পুরোদমে চালু না হওয়ায় কনটেইনার হ্যান্ডলিং বিঘ্নিত হচ্ছে। বন্দর শেডসমূহে পণ্য চুরি ও আত্মসাৎ ঠেকাতে সার্বক্ষণিক সিসিটিভি ক্যামেরা কার্যকরভাবে চালু রাখা জরুরী। পাশাপাশি চট্টগ্রাম ও অন্য বন্দরের মধ্যে বিদ্যমান বৈষম্যমূলক চার্জ জরুরিভাবে প্রত্যাহার করতে হবে।’

ফোরাম চেয়ারম্যান ও চট্টগ্রাম চেম্বার সভাপতি মাহবুবুল আলমের সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য রাখেন চেম্বার পরিচালক মাহফুজুল হক শাহ, আনোয়ার শওকত আফসার, বিজিএমইএ ও বিকেএমইএর পক্ষে শওকত ওসমান, সিঅ্যান্ডএফ সভাপতি এ কে এম আক্তার হোসেন, যুগ্ম সম্পাদক কাজী মাহমুদ ইমাম বিলু ও বন্দর বিষয়ক সম্পাদক লিয়াকত আলী হাওলাদার।

এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন বিএমএসএর চেয়ারম্যান ইব্রাহিম, ওওসিএলর জিএম ক্যাপ্টেন গিয়াস উদ্দিন চৌধুরী, শিপিং এজেন্টস অ্যাসোসিয়েশনের পরিচালক সাহেদ সারোয়ার, মার্কস লাইনের সরোয়ার আলম চৌধুরী, হ্যানজিং শিপিং এর জিএম এনএস গুহ রায়, সিএমএ সিজিএমের ওয়াহিদ আলম, চট্টগ্রাম বন্দর ট্রাক মালিক ও কন্ট্রাক্টর অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক আলহাজ্ব জহুর আহমেদ ও বিজিএপিএমইএর কে এইচ লতিফুর রহমান, চেম্বার পরিচালক ছৈয়দ ছগীর আহমেদ, কামাল মোস্তফা চৌধুরী, অহীদ সিরাজ চৌধুরী (স্বপন) ও জাহাঙ্গীর প্রমুখ।