বঙ্গবন্ধু হত্যাকারী রশিদের সব সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত

প্রকাশ:| রবিবার, ১৪ জুন , ২০১৫ সময় ০৮:১০ অপরাহ্ণ

: জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তার পরিবারের সদস্যদের হত্যা মামলার অন্যতম আসামি কর্নেল (অব.) আব্দুর রশিদের গ্রামের বাড়ি কুমিল্লার চান্দিনায় সব সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা হয়েছে।

রোববার (১৪ জুন) দুপুরে সরকারের পক্ষে কুমিল্লা জেলা ম্যাজিস্ট্রেট ও জেলা প্রশাসক (ডিসি) হাসানুজ্জামান কল্লোলের নির্দেশে এবং চান্দিনা উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) উপস্থিতিতে ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত পলাতক আসামি রশিদের বাড়িসহ ৬.১২ একর সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করে ৬টি সাইনবোর্ড টাঙিয়েছে চান্দিনা থানা পুলিশ।

চান্দিনা থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক (এসআই) সাজেদুল ইসলাম বাংলানিউজকে জানান, বঙ্গবন্ধুকে স্বপরিবারে হত্যার দায়ে ফাঁসির দণ্ডপ্রাপ্ত স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয় নির্দেশিত স্মারক মোতাবেক গত ১৫ ফেব্রুয়ারি জেলা ম্যাজিস্ট্রেট বঙ্গবন্ধুর আত্মস্বীকৃত খুনি কর্নেল (অব.) আব্দুর রশিদ ও তার বাবা আব্দুল করিমের সব ওয়ারিশ সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা হয়।

এসআই সাজেদুল আরও জানান, এ বিষয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে চান্দিনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে দায়িত্ব দেন আদালত। ওই নির্দেশ মোতাবেক রোববার দুপুরে ছয়ঘরিয়া-করতলা-পানিপাড়া ও থানগাঁও মৌজার ৬.১২ একর সম্পত্তিতে ‘তফসিল বর্ণিত সম্পত্তি সরকারের বাজেয়াপ্ত সম্পত্তি, ওই সম্পত্তিতে জনসাধারণের প্রবেশ নিষেধ’ লেখা সম্বলিত সাইনবোর্ড সাঁটানো হয়েছে।

এ সময় উপজেলা ম্যাজিস্ট্রেট ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) আলী আফরোজ, থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রসুল আহমেদ নিজামীসহ সংশ্লিষ্ট ইউনিয়নের উপ সহকারী ভূমি কর্মকর্তা উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে ১৯৯৬ সালের ১৯ ডিসেম্বর একইভাবে আদালতের নির্দেশে খুনি রশিদের আরও ১০.৮২ একর সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করা হয়। সব মিলিয়ে রশিদ ও তার পরিবারের প্রায় ১৭ একর সম্পত্তি বাজেয়াপ্ত করলো সরকার।

চান্দিনা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) রসুল আহমেদ নিজামী বাংলানিউজকে জানান, আদালতের নির্দেশ মোতাবেক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করেছি। এখন থেকে ওইসব সম্পত্তি তদারকি করবে চান্দিনা থানা পুলিশ। যদি কোনো জনগণ ওই সম্পত্তিতে অনাধিকার প্রবেশ করে তার বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।