ফটিকছড়িতে আওয়ামী লীগ নেতার কুশপুত্তলিকা পুড়ালো ছাত্রলীগ

প্রকাশ:| শুক্রবার, ১১ মার্চ , ২০১৬ সময় ১১:৪১ অপরাহ্ণ

fatickcharibsl-pic-11-03-ফটিকছড়িতে উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সাবেক রাষ্ট্রদূত নুরুল আলম চৌধুরীর কুশপুত্তলিকা দাহ করেছে ছাত্রলীগ। শুক্রবার বিকেলে উপজেলার মাইজভান্ডার সড়কের আজিমনগর এলাকায় কুশপুত্তলিকা পুড়ানোর সময় বিক্ষুব্দ ছাত্রলীগ নেতাকর্মীরা সড়কে ব্যারিকেট দিয়ে যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দিলে উভয় দিকে অসংখ্য যানবাহন আচকা পড়ে। পরে ফটিকছড়ি থানা পুলিশ গিয়ে সড়ক অবরোধ তুলে দিলে যান চলাচল স্বাভাবিক হয়।

স্থানীয় সুত্রে জানাগেছে রোসাংগিরী ইউনিয়ন ছাত্রলীগের আসন্ন সম্মেলন স্থগিতাদেশ প্রদান করায় ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের একাংশ বিক্ষুব্দ হয়ে এ ঘটনা ঘটায়।

 ইউনিয়নের একাধিক ছাত্রলীগ নেতা-কর্মীদের জানায়, আগামী ১৪ তারিখ ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। যার লক্ষ্যে ইতিমধ্যে সকল প্রস্তুতি গ্রহন করা হয়েছে। ইতিপূর্বে তিন দফায় তারিখ নির্ধারণ করা হলেও সম্মেলন অনুষ্ঠিত না হওয়ায় হতাশা বিরাজ করছিল নেতাকর্মীদের মাঝে। কিন্তু সম্মেলনের সকল প্রস্তুতি গ্রহন হওয়ার পর হঠাৎ সম্মেলন স্থগিত করার নির্দেশ দেন জেলা আওয়ামী লীগের শীর্ষ নেতা নুরুল আলম চৌধুরী। তারই প্রেক্ষিতে ক্ষুব্ধ হয়ে উঠেন ছাত্রলীগের তৃণমূলের নেতাকর্মীরা। তাদের ক্ষোভের বহি:প্রকাশ ঘটালো কুশপুত্তলিকা দাহের মাধ্যমে।

অপরদিকে ওই ইউনিয়নের ছাত্রলীগের অপর একটি অংশ নাম প্রকাশ না করার শর্তে বলেন,‘ যাদের নেতৃত্বে রোসাংগীরিতে ছাত্রলীগের ঘাঁটি হয়েছে, সেসব নেতাদের না জানিয়ে কমিটি গঠন করার পাঁয়তারা করছিল একটি অংশ। যার কারণে বড় ধরণের একটি সংঘর্ষের ঘটনা থেকে রক্ষা করতে উত্তর জেলা আ‘লীগের সভাপতি নুরুল আলম চৌধুরীর হস্তক্ষেপ কামনা করেন। নুরুল আলম চৌধরী জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি বখতিয়ার সাঈদ ইরানকে সম্মেলন স্থগিত করার জন্য বললে সভাপতি তা স্থগিত করার নির্দেশ দেন।

তবে, এ ব্যাপারে জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি বখতিয়ার সাঈদ ইরান বলেন,‘ জেলা আ’লীগের সভাপতির কুশপুত্তলিকা দাহের বিষয়টি জানি না। খবর নিয়ে দেখছি।’ তিনি এর বেশি কিছু বলতে চাননি।

অপরদিকে, উত্তর জেলা আ‘লীগের সভাপতি নুরুল আলম চৌধুরী সম্মেলন স্থগিতাদেশ প্রদান বিষয়টি অস্বীকার করে বলেন, বিষয়টি একান্ত ছাত্রলীগের। এ ব্যাপারে আমার কোন বক্তব্য নেই। ’