প্রেমিকার সাথে দেখা করতে গিয়ে এক যুবক আটক

প্রকাশ:| মঙ্গলবার, ৮ ডিসেম্বর , ২০১৫ সময় ১০:২৯ অপরাহ্ণ

কক্সবাজার
এ.এম হোবাইব সজীব,
ফাঁসিয়াখালী ২নং ওয়ার্ডের ওলার ঝিরি নতুন পাড়ায় প্রেমিকার সাথে দেখা করতে গিয়ে জনতার হাতে আটক হয়েছে ইমন নামক এক যুবক। পরে মোবাইল ও নগদ টাকা হাতিয়ে নিয়ে গভীর রাতে ছেড়ে দিয়েছে আনসার ভিডিপির ইউনিয়ন কমান্ডার জাফর আলম। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ক্ষতিগ্রস্ত প্রেমিকার আত্মীয় স্বজন ও এলাকাবাসীর মাঝে চলছে ক্ষোভ আর হতাশা।
লামা ফাঁসিয়াখালীর ২নং ওয়ার্ডের ওলার ঝিরি নতুন পাড়ার বিদেশ প্রবাসী সাকের উল্লাহর কন্যা রুবি আক্তার প্রকাশ তাহেরা জানান, দীর্ঘদিন ধরে কক্সবাজার কলাতলী সড়কের বেলা ভুমি কটেজের ম্যানেজার ইমনের সাথে মোবাইল যোগে তার পরিচয় ঘটে। এ পরিচয়ের সুত্র ধরে ইমন গত ৬ ডিসেম্বর রুবি আক্তারের বাড়ীতে আসে। ঐদিন রাতে আনসার ভিডিপির ইউনিয়ন কমান্ডার জাফর আলম সংগীয় কয়েকজন যুবককে নিয়ে রুবি আক্তারের বাড়ী থেকে ইমনকে আটক করে আনসার ভিডিপির কার্যালয়ে নিয়ে যায়। ৮ ডিসেম্বর উভয়পক্ষের আত্মীয় স্বজনের উপস্থিতিতে দু’জনের বিয়ে সম্পন্ন করার কথা দিয়ে যুবক ইমনকে আনসার ভিডিপি কমান্ডার জাফরের বাড়ীতে নিয়ে যায়। ঐদিন রাতে ইমনের মুল্যবানের মোবাইল সেট সহ মোটা অংকের টাকা হাতিয়ে নিয়ে প্রেমিকা রুবি আক্তারের পরিবারের অজান্তে তাকে ছেড়ে দেয়। এ ঘটনা এলাকায় জানাজানি হলে এলাকাবাসীল মাঝে দেখা দেয় ক্ষোভ আর হতাশা। এদিকে উক্ত ওয়ার্ডের ইউ,পি সদস্য নুরুল আবছারের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, জাফরের আওতা থেকে যুবকটিকে ছেড়ে দেয়ার ঘটনা শুনে আমি অত্যন্ত মর্মাহত হয়েছি। চেয়ারম্যান জাকের হোসেন মজুমদারের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি ক্ষোভের সাথে জানান, এলাকার চেয়ারম্যান ও মেম্বারকে অবহিত না করে আনসার ভিডিপির ইউনিয়ন কমান্ডার জাফর এ ঘটনায় হস্তক্ষেপ করায় আইনত অবৈধ। তিনি আরো জানান, ইতিপূর্বেও কমান্ডার জাফর বহু অপকর্ম করেছে। যেহেতু তার শাস্তির দাবী করছি।