প্রত্যেকের পরিবারকে এক কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার দাবি

প্রকাশ:| বৃহস্পতিবার, ৬ এপ্রিল , ২০১৭ সময় ১১:১৭ অপরাহ্ণ

সী-ট্রাকের তেল সাশ্রয়ের জন্য উত্তাল সমুদ্রে সময়ক্ষেপণ, লাল বোটে জনপ্রতি ১০ টাকা বকশিশ আদায় এবং জেলা পরিষদ ও বিআইডব্লিউটিএর সমন্বয়হীনতার কারণেই সন্দ্বীপের গুপ্তছড়া ঘাটে দুর্ঘটনা ঘটেছে দাবি করে নিহতদের প্রত্যেকের পরিবারকে এক কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ দেওয়ার দাবি জানিয়েছে সন্দ্বীপ অধিকার আন্দোলন।

বৃহস্পতিবার (০৬ এপ্রিল) সন্ধ্যায় চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে এ দাবি জানানো হয়। রোববার (০২ এপ্রিল) সন্ধ্যায় দুর্ঘটনার পর থেকে এ পর্যন্ত ১৭ জনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। নিখোঁজ রয়েছেন বেশ কয়েকজন।

সংবাদ সম্মেলনে বক্তব্য দেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতির সাবেক নেতা ড. হাসান মোহাম্মদ, যুবলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য আরিফুর রহমান, যুবদলের সন্দ্বীপ উপজেলা আহ্বায়ক ফোরকান উদ্দিন রিজভী, উত্তর জেলা ছাত্রদলের সহসভাপতি আবুর কালাম আজাদ, সন্দ্বীপ অধিকার আন্দোলনের আহ্বায়ক মুকতাদের আজাদ খান, যুগ্ম আহ্বায়ক ফসিউল আলম, সদস্যসচিব মো. হাসানুজ্জামান সন্দ্বীপি।

ড. হাসান মোহাম্মদ বলেন, ২ এপ্রিল সন্ধ্যায় সন্দ্বীপের গুপ্তছড়া ঘাটে যা ঘটেছে তা দুর্ঘটনা নয়, এটি পরিকল্পিতভাবে মানবসৃষ্ট হত্যাকাণ্ড। নিরপেক্ষ তদন্তের মাধ্যমে দোষী ও দায়িত্ব অবহেলায় জড়িতদের চিহ্নিত করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দিতে হবে।

সংবাদ সম্মেলনে শুক্রবার (০৭ এপ্রিল) সকাল ১০টায় চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবের সামনে সন্দ্বীপের গুপ্তছড়া ঘাটে শিগগির ভাসমান জেটি স্থাপন, লাল বোট মাঝিদের বকশিশের নামে হয়রানি বন্ধ, সী ট্রাকের অব্যবস্থাপনা ও জেলা পরিষদের সঙ্গে বিআইডব্লিউটিএর সমন্বয়হীনতা দূর করা এবং নিহতদের ক্ষতিপূরণের দাবিতে মানববন্ধনের ঘোষণা দেওয়া হয়।


আরোও সংবাদ