পার্বত্যাঞ্চলে চাষ হচ্ছে গ্রীন মাল্টা

প্রকাশ:| শুক্রবার, ৩০ আগস্ট , ২০১৩ সময় ০৫:২১ অপরাহ্ণ

নিজাম উদ্দিন লাভলু, রামগড় (খাগড়াছড়ি)
গ্রীন মাল্টাপার্বত্য চট্টগ্রামের টিলাভূমিতে সুমিষ্ট গ্রীন মাল্টার চাষাবাদ হচ্ছে। পার্বত্যাঞ্চলের আবহাওয়া ও মাটি ভিটামিন সি সমৃদ্ধ এ ফল চাষের জন্য বেশ উপযোগী বলে জানিয়েছেন কৃষি বিজ্ঞানীরা। রামগড় পাহাড় অঞ্চল কৃষি গবেষণা কেন্দ্রের বাগানে এবছর প্রচুর ফলন হয়েছে গ্রীন মাল্টার। সরেজমিনে দেখা গেছে, টিলার ঢালে ছোট ছোট গাছগুলোতে মাল্টা ধরেছে। এ ছাড়া রামগড়ের নাকাপা, তৈচাকমা, বড়পিলাক, খাগড়াছড়ির পানছড়ি, দীঘিনালাসহ বিভিন্ন উপজেলায় পাহাড়ি টিলায় মাল্টা চাষ হচ্ছে। রামগড় পাহাড় অঞ্চল কৃষি গবেষণা কেন্দ্রের প্রধান বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তা ড.জুলফিকার আলী ফিরোজ জানান, ২০০৩ সালে খাগড়াছড়ি পাহাড়ি কৃষি গবেষণা কেন্দ্রে দীর্ঘ গবেষণার পর বারি মাল্টা-১ নামে উদ্ভাবিত মাল্টার নতুন জাতটি অবমুক্ত করা হয়।

এটি বাংলাদেশে উদ্ভাবিত একমাত্র জাত। আমদানিকৃত মাল্টা হলুদ ও কমলা রঙের হলেও বারি মাল্টা-১ পাকলেও এর রং সবুজ থাকে। খেতে সুমিষ্ট ও রসালো। পূর্ণ বয়স্ক গাছে ৩শ’-৪শটি ফল ধরে। বারি মাল্টা-১ পার্বত্য চট্টগ্রামের টিলা ভূমিতে চাষ উপযোগী বিধায় ২০০৩ সাল হতে রামগড়সহ খাগড়াছড়ি জেলার বিভিন্ন উপজেলায় চাষাবাদ শুরু হয়। ২০০৭ সালে রাঙ্গামাটি জেলার রাইখালীস্থ কৃষি গবেষণা কেন্দ্রের মাধ্যমে ঐ জেলায় মাল্টার চাষ সম্প্রসারণ করা হয়। কৃষিবিদরা জানান, সরকারি প্রকল্পের মাধ্যমে পাহাড়ি এলাকায় সম্ভাবনাময় মাল্টা ব্যাপকহারে উত্পাদিত ফল সারা দেশের চাহিদা পূরণ করতে পারবে।