পটিয়ায় সাংবাদিকদের সাথে পৌর মেয়র হারুনের মতবিনিময়

প্রকাশ:| মঙ্গলবার, ১ ডিসেম্বর , ২০১৫ সময় ০৯:০৩ অপরাহ্ণ

হারুনের মতবিনিময়

পটিয়া প্রতিনিধি॥ বিগত পাঁচ বছরে উচ্চ বিলাসী না হয়ে জনগণের খাদেম হিসেবে কাজ করেছি। পৌরসভাকে ভোগ বিলাসের জায়গা হিসেবে ব্যবহার করিনি। পৌরসভার উন্নয়ন কাজ দ্রুতগতিতে এগিয়ে যাচ্ছে। অতীতে পৌরসভায় ভবন ও বিভিন্ন সুযোগ সুবিধার অভাবে ভালভাল কর্মকর্তারা আসতে চাইতো না। এখন এ অবস্থার পরিবর্তন হয়েছে। পৌরসভার মাষ্টার প্ল্যান পাস করা হয়েছে। কে বা কারা পত্রিকায় কি বিবৃতি দিয়েছে তা দেখার বিষয় নয়, পৌরসভায় গত পাঁচ বছরে ৫ কোটি টাকা ব্যয়ে ভবন নির্মাণসহ ব্যাপক উন্নয়ন সাধিত হয়েছে। আমার দায়িত্ব পালনকালে অডিট ঠিম আমার বিরুদ্ধে কোন অনিয়ম দূর্নীতি পায়নি। মঙ্গলবার দুপুরে পৌরসভা মিলনায়নে বিভিন্ন গণমাধ্যমে কর্মরত স্থানীয় সাংবাদিকদের সাথে এক মতবিনিময় সভায় পৌর মেয়র অধ্যাপক হারুনুর রশিদ এ কথাগুলো বলেন। এসময় তার সাথে ছিলেন পটিয়া পৌরসভা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মো. আলমগীর আলম ও পৌর আওয়ামলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক নাছির উদ্দীন।

আলমগীর আলম বলেন, আমিও মেয়র প্রার্থী ছিলাম দলের গঠনতন্ত্র অনুযায়ী মেয়র পদে অধ্যাপক হারুনুর রশিদকে দলীয়ভাবে প্রার্থী ঘোষণা করায় আমি আমার প্রার্থীতা প্রত্যাহার
করেছি। আওয়ামীলীগের মেয়র প্রার্থী ও বর্তমান মেয়র অধ্যাপক হারুনুর রশিদ আরো বলেন, ইতোমধ্যে দলীয়ভাবে একক প্রার্থী হিসেবে আমাকে মনোনয়ন দেয়া হয়েছে। কয়েকদিনের মধ্যে দলের সভানেত্রী ও প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনার স্বাক্ষরিত চিঠি পেলে বিষয়টি আরো স্পষ্ট হবে। গত নির্বাচনে আমার দেয়া প্রতিশ্রুতি কাজ ইতোমধ্যে ৯৯% সম্পন্ন হয়েছে। প্রতিশ্রুতির মধ্যে শুধুমাত্র মাতৃসদন নির্মাণ বাকী রয়েছে।


আরোও সংবাদ