পটিয়ায় মানবাধিকার কর্মীর ছদ্মাবরণে ইয়াবা ব্যবসা

প্রকাশ:| বৃহস্পতিবার, ১৯ অক্টোবর , ২০১৭ সময় ১০:০২ অপরাহ্ণ

বাংলাদেশ মানবাধিকার কাউন্সিলের পটিয়ার নেতৃবৃন্দের সাথে বিপ্লব (গোল বৃ্ত্ত অংকিত ব্যাক্তিটি )

পটিয়া প্রতিনিধি
পটিয়ায় মানবাধিকার কর্মীর ছদ্দাবরনে ইয়াবা ব্যবসা করে আসছিলো বিপ্লব চৌধুরী কিন্তু এতেও শেষ রক্ষা হলোনা তার।

পটিয়ায় ইয়াবাসহ এক মানবাধিকার কর্মীকে পুলিশ গ্রেফতার করেছে। তার নাম বিপ্লব চৌধুরী (৪০)। সে উপজেলার কচুয়াই ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডের চক্রশালা গ্রামের বাবুল চৌধুরীর পুত্র। বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১১টায় কচুয়াই ইউনিয়নের কথা মৌজা গ্রাম থেকে বিপ্লবকে পুলিশ গ্রেফতার করে। সে বাংলাদেশ মানবাধিকার কাউন্সিলের পটিয়ার সহ-সমাজকল্যাণ সম্পাদক।
পুলিশ জানান, বেশ কিছুদিন ধরে উপজেলার কচুয়াই ইউনিয়নের বিভিন্ন স্পটে ইয়াবা ও ছোঁলাই মদের ব্যবসা চলে আসছিল। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পটিয়া থানার এসআই ধীমান মজুমদার অভিযান চালিয়ে মানবাধিকার কর্মী বিপ্লবকে হাতেহাতে ৫৫ পিস ইয়াবাসহ গ্রেফতার করে। ওই সময় আরেক ইয়াবা ব্যবসায়ী কালু ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়। তারা ইয়াবা সেবন ও ইয়াবা বিক্রী করে থাকেন। পটিয়া থানার উপ-পরিদর্শক ধীমান মজুমদার বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি বলেন, প্রায় সময় কচুয়াই কথামৌজা এলাকায় ইয়াবা ব্যবসা করে আসছিল। পুলিশ খবর পেয়ে অভিযান চালাতে গেলে ইয়াবা ব্যবসায়ী কয়েকজন পালিয়ে যায়। এসময় বিপ্লবের কাছ থেকে ৫৫ পিস ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। তার বিরুদ্ধে মাদকদ্রব্য আইনে একটি মামলা রেকর্ড করা হয়েছে। কচুয়াই ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান এস,এম, ইনজামুল হক জসিম বলেন, তার এলাকায় ইয়াবা ব্যবসায়ীদের তৎপরতা বেড়েছে। এজন্য তিনি পুলিশ প্রশাসনের সহযোগিতা কামনা করেন।
এ ব্যাপারে বাংলাদেশ মানবাধিকার কাউন্সিলের পটিয়া সভাপতি মোজাম্মেল হোসেন রাজধন বলেন, সংগঠনের কেউ অপরাধের সঙ্গে জড়িত থাকলে সংগঠন তার দায়ভার নিবে না। ইয়াবাসহ বিপ্লবকে আটক করার কথা শুনেছি। তাকে সংগঠনের গণতন্ত্র মোতাবেক শীঘ্রই বর্হিস্কার করা হবে।


আরোও সংবাদ