নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন ৮ শ’ ৪৭ প্রার্থী

প্রকাশ:| শুক্রবার, ৬ ডিসেম্বর , ২০১৩ সময় ১০:৩৬ অপরাহ্ণ

জাতীয় সংসদ নির্বাচনদশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনের ঘোষিত তফসিল অনুযায়ী যাচাই বাছাই শেষে বৈধ প্রার্থী হিসাবে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন ৮ শ’ ৪৭ প্রার্থী। একক প্রার্থী হিসেবে বৈধ হয়েছেন ৩৩ জন।

শুক্রবার রাত নয়টা পর্যন্ত নির্বাচন কমিশন সচিবালয়ে দেশের ৩ শ’ টি সংসদীয় আসনের রিটার্নিং অফিসারদের পাঠানো রিপোর্ট থেকে এ তথ্য জানা যায়।

মনোনয়নপত্র জমা দেওয়ার শেষদিন ২ ডিসেম্বর পর্যন্ত ৩০০ আসনের বিপরীতে মনোনয়নপত্র জমা পড়ে ১ হাজার ১ শ’ ৭ টি। ৫ ও ৬ ডিসেম্বর যাচাই বাছাইয়ের পর ২শ’৬০ জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বাতিল করা হয়। এরমধ্যে স্বেচ্ছায় প্রত্যাহার করে নেয় ৭ জন প্রার্থী। একক প্রার্থী হিসেবে বৈধ হয়েছেন ৩৩ জন । মনোনয়নপত্র প্রত্যাহারের দিন পর্যন্ত তাদের মনোনয়ন বহাল থাকলে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় বিজয়ী হবেন তারা ।

লক্ষ্মীপুর সদর-৩ আসনে কোন প্রার্থী নেই
লক্ষ্মীপুর সদর-৩ আসনের আওয়ামী লীগের প্রার্থী একেএম শাহজাহান কামাল ও জাতীয় পার্টির মনিরুজ্জামান চৌধুরীর মনোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে ঋণখেলাপের দায়ে। ফলে এ আসনে আর কোন প্রার্থী নেই। জেলা নির্বাচন অফিস সূত্রে জানা যায়, আগামী দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনের মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাইয়ের তারিখ ছিল গতকাল। গতকাল প্রথম দিনে লক্ষ্মীপুর-১ রামগঞ্জ ও লক্ষ্মীপুর-৩ সদর আসনের মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই করা হয়। বাংলাদেশ ব্যাংকের রিপোর্ট অনুযায়ী আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী একেএম শাহজাহান কামাল ও জনতা ব্যাংকের রিপোর্ট অনুযায়ী জাতীয় পার্টির মনোনীত প্রার্থী মো. মনিরুজ্জামান চৌধুরী উভয়ই ঋণখেলাপি। অপরদিকে লক্ষ্মীপুর-১ রামগঞ্জ আসনের ৪জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষণা করেছেন জেলা রিটার্নিং অফিসার। তারা হলেন আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী মো. শাহজাহান, আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী সফিকুল ইসলাম, জাতীয় পার্টির মাহমুদুর রহমান, তরীকত ফেডারেশনের এমএ আউয়াল।