নিখোঁজ হওয়ার দুদিন পর ডোবা থেকে লাশ উদ্ধার!

প্রকাশ:| বৃহস্পতিবার, ৬ ফেব্রুয়ারি , ২০১৪ সময় ০৮:২১ অপরাহ্ণ

ফটিকছড়িতে নিখোঁজের দুদিন পর বাপ্পু কান্তি দে (২২) নামে এক যুবকের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার ভূজপুর চাঁনপুর গ্রামের সিংহপাড়ার একটি ডোবা থেকে তার লাশ উদ্ধার করা হয়। সে ওই এলাকার লালু কান্তি দের ছেলে।

সকালে পথচারীরা পার্শ্ববর্তী ডোবায় তার লাশ দেখে স্থানীয় পুলিশকে খবর দেয়। দুপুরে পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার করে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ (চমেক) হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।

এলাকাবাসী জানান, স্থানীয়ভাবে পরিচালিত পূজা উদ্‌যাপন কমিটির সভাপতির দায়িত্ব পালন করছিলেন বাপ্পু। এছাড়া দীর্ঘদিন ধরে বাপ্পু চট্টগ্রাম শহরে ক্যাবল নেটওয়ার্কের ব্যবসা পরিচালনা করে আসছিল। এলাকায় কারো সঙ্গে তার মতবিরোধ ছিল না।

বাপ্পুর বোন জয়া কান্তি দে বলেন, ‘গত মঙ্গলবার রাত ৯টায় মুঠোফোনে আর্থিক বিষয় নিয়ে কথা বলতে বলতে ঘর থেকে বের হন বাপ্পু। কিন্তু রাত ১০টা থেকে তার মুঠোফোনটি বন্ধ পাওয়া যায়। ধারণা করছিলাম পূজায় বন্ধুদের সঙ্গে আড্ডা দিচ্ছে। কিন্তু রাতে ঘরে ফিরে না আসায় অনেক খোঁজখুঁজি করে তাকে না পেয়ে পরদিন সন্ধ্যায় ভূজপুর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করা হয়।’

আর্থিক বিষয় নিয়ে পূজাকমিটির সংশ্লিষ্ট কেউ তাকে হত্যা করতে পারে বলে সন্দেহ করছেন বোন জয়া।

তবে বিষয়টি উড়িয়ে দিয়ে পূজা উদ্‌যাপন কমিটির সহসভাপতি তিমির কুমার সোম জানান, ‘বাপ্পুর সঙ্গে কমিটির কারো আর্থিক বা ব্যক্তিগত দ্বিমত ছিল না।’

ভূজপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. কবির হোসেন বলেন, ‘লাশটি যেভাবে পাওয়া গেছে তাতে মনে হয়েছে এটি হত্যাকাণ্ড। তবে, শরীরের কোথাও কোনো আঘাতের চিহ্ন নেই। আমরা সুরতহাল তৈরি করে ময়না তদন্তের জন্য লাশ মর্গে পাঠিয়েছি।’