দক্ষিণ রাউজানে শহীদ হালিম লিয়াকত স্মৃতি বৃত্তির পুরষ্কার বিতরণ ও গুণিজন সংবর্ধনা

প্রকাশ:| শুক্রবার, ২২ আগস্ট , ২০১৪ সময় ১০:১৮ অপরাহ্ণ

দক্ষিণ রাউজানে শহীদ হালিম লিয়াকত স্মৃতি বৃত্তিরশফিউল আলম, রাউজানঃশহীদ হালিম-লিয়াকত স্মৃতি সংসদ চট্টগ্রামের দক্ষিণ রাউজান জোনের উদ্যোগে আয়োজিত শহীদ-হালিম-লিয়াকত স্মৃতি বৃত্তির পুরষ্কার বিতরণ ও গুণিজন সংবর্ধনা গতকাল শুক্রবার বিকালে নোয়াপাড়া উচ্চ বিদ্যালয় হলরুমে সংগঠনের পরিচালক আমান উল্লাহ আমানের সভাপতিত্বে ও সাংবাদিক এস.এম. ইউসুফ উদ্দিনের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত হয়। এতে উদ্বোধক ছিলেন অধ্যক্ষ মাওলানা ইলিয়াছ নূরী। প্রধান অতিথি ছিলেন, রাউজান উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান আলহাজ্ব নূর মোহাম্মদ। বিশেষ অতিথি ছিলেন, আনজুমানে খোদ্দামুল মোসলেমিন ইউএই শাখার চেয়ারম্যান হাফেজ আব্দুল আজিজ, শহীদ হালিম লিয়াকত বৃত্তির কেন্দ্রীয় পরীক্ষা নিয়ন্ত্রক সৈয়দ মুহাম্মদ গোলাম কিবরিয়া, বাগোয়ান ইউপির চেয়ারম্যান ভুপেশ বড়–য়া, নোয়াপাড়া ইউপির সাবেক চেয়ারম্যান মনিরুল ইসলাম, নোয়াপাড়া ইউপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান বাবুল মিয়া, সৈয়দ নুর, উপজেলা দক্ষিণ গাউছিয়া কমিটির সভাপতি আহমেদ সৈয়দ, ব্যবসায়ী জিয়াউর রহমান, নোয়াপাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক জানে আলম, নুরে মদিনা হজ্ব প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা আলহাজ্ব আব্দুল আজিজ, পূর্ব গুজরা মুহাম্মদীয় সিনিয়র মাদ্রাসার অধ্যক্ষ সৈয়দ আবু মোস্তাক আল-কাদেরী, কেন্দ্র প্রধান অধ্যাপক সৈয়দ জামাল উদ্দিন, মাওলানা মূফতি জিল্লুর রহমান হাবিবী, মুহাম্মদ সায়েম উদ্দিন, আশেক বিন আব্দুল আজিজ, মোহাম্মদ আবু ওসমান, সাংবাদিক কামাল উদ্দিন, গাজী জয়নাল আবেদীন। প্রধান আলোচক ছিলেন, শহীদ হালিম-লিয়াকত স্মৃতি বৃত্তির কেন্দ্রীয় নির্বাহী পরিচালক আজিম উদ্দিন আহমেদ জনি। বক্তব্য রাখেন, নোয়াপাড়া উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক জব্দুল হক, চুয়েট প্রাইমারী স্কুলের প্রধান শিক্ষক একে আজদ খান, আলমগীর হোসেন, মাওলানা কাজী শওকত উদ্দিন, হাফেজ আব্দুল আজিজ, আনিসুর রহমান, মুহাম্মদ ফোরকান, আব্দুল্লাহ আল রোমান, শামসুল আরেফীন, মুহাম্মদ মাজেদ হোসেন, মুহাম্মদ তৈয়ব, তসলিম উদ্দিন, নওশাদ মামুন, রবিউল হোসেন রাকিব, রবিউল হোসেন সুমন, রাশেদুল ইসলাম, এনামুল হক, ইমতিয়াজ, বৃত্তি প্রাপ্ত ছাত্রী নাছরিন আকতার রুজি, আমেনা আকতার বিথি প্রমুখ। অনুষ্ঠানে ২জন গুণি সৈয়দ আব্দুল মান্নান ও উপজেলা গাউছিয়া কমিটির সাবেক সভাপতি আলহাজ্ব ফয়েজ আহমদ সওদগরকে মরণোত্তর সংবর্ধনা দেওয়া হয়। অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, শিক্ষার্থীদের প্রতিভা বিকাশে হালিম-লিয়াকত স্মৃতি বৃত্তির বিকল্প নেই। আদর্শ সৎ ও ন্যায় পরায়ন শিক্ষার্থী গড়ে তুলতে এ ধরনের সৃজশীল পরীক্ষায় অংশগ্রহন অত্যন্ত জরুরী।