ডেসটিনির দুই মামলা : অভিযোগ গঠন ৬ আগস্ট

প্রকাশ:| সোমবার, ২৭ জুলাই , ২০১৫ সময় ১১:২৫ অপরাহ্ণ

গ্রাহকদের চার হাজার ১১৯ কোটি টাকা আত্মসাৎ ও পাচারের অভিযোগে দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) দায়ের করা আলাদা দুই মামলায় ডেসটিনির ব্যবস্থাপনা পরিচালক রফিকুল আমিনসহ ৫১ আসামির বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন শুনানির জন্য আগামী ৬ আগস্ট দিন ধার্য করেছেন আদালত।

আজ সোমবার ঢাকার জ্যেষ্ঠ বিশেষ জজ কামরুল হোসেন মোল্লা এ দিন ধার্য করেন।

আজ এ মামলায় অভিযোগ গঠনের শুনানির জন্য দিন ধার্য ছিল। কিন্তু আসামিপক্ষের আইনজীবী এহসানুল হক সমাজি অভিযোগ গঠনের শুনানি পেছানোর জন্য সময়ের আবেদন করেন। তাঁর আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বিচারক সময়ের আবেদন মঞ্জুর করে অভিযোগ গঠন শুনানির জন্য নতুন দিন ধার্য করেন।

আসামিপক্ষের আইনজীবী এহসানুল হক সমাজি নতুন তারিখ নির্ধারণের বিষয়টি এনটিভি অনলাইনকে নিশ্চিত করেছেন।

এ ছাড়া আজ এ মামলায় পলাতক ৪৬ আসামির বিরুদ্ধে পত্রিকায় গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশের প্রতিবেদন দাখিলের জন্য দিন ধার্য ছিল।

আজ মামলার জামিনে থাকা আসামি ডেসটিনির প্রেসিডেন্ট সাবেক সেনাপ্রধান লে. জেনারেল (অব) হারুন-অর-রশিদ আদালতে হাজির ছিলেন।

কারাগারে থাকা ডেসটিনির এমডি রফিকুল আমিন ও ডেসটিনির চেয়ারম্যান মোহাম্মদ হোসেন, পরিচালক লে. কর্নেল (অব.) দিদারুল আলম, শফিউল ইসলামকেও আদালতে হাজির করা হয়।

এ ছাড়া এ মামলায় পলাতক আছেন- ডেসটিনির উপব্যবস্থাপনা পরিচালক গোফরানুল হক, পরিচালক মেজবাহ উদ্দিন, ফারাহ দীবা, সাঈদ-উর-রহমান, সৈয়দ সাজ্জাদ হোসেন, জমশেদ আরা চৌধুরী, ইরফান আহমেদ, শেখ তৈয়বুর রহমান, নেপাল চন্দ্র বিশ্বাস, জাকির হোসেন, জসিমউদ্দিন ভূঁইয়া, এস এম আহসানুল কবির, জুবায়ের হোসেন, মোসাদ্দেক আলী খান, আবদুল মান্নান, আবুল কালাম আজাদ, আজাদ রহমান, মো. আকবর হোসেন সুমন, মো. সুমন আলী খান, শিরীন আকতার, রফিকুল ইসলাম সরকার, মো. মজিবুর রহমান, ড. এম হায়দারুজ্জামান, মোহাম্মদ জয়নাল আবেদীন, কাজী মো. ফজলুল করিম, মোল্লা আল আমীন, মো. শফিউল ইসলাম, সিকদার কবিরুল ইসলাম, মো. ফিরোজ আলম, ওমর ফারুক, সুনীল বরণ কর্মকার ওরফে এস বি কর্মকার, ফরিদ আকতার, এস সহিদুজ্জামান চয়ন, আবদুর রহমান তপন, মেজর (অব.) সাকিবুজ্জামান খান, এস এম আহসানুল কবির (বিপ্লব), এ এইচ এম আতাউর রহমান রেজা, গোলাম কিবরিয়া মিল্টন, মো. আতিকুর রহমান, খন্দকার বেনজীর আহমেদ, এ কে এম সফিউল্লাহ, শাহ আলম, মো. দেলোয়ার হোসেন, মিসেস জেসমিন আক্তার (মিলন) ও মো. শফিকুল হক।

গত বছরের ৪ মে গ্রাহকদের চার হাজার ১১৯ কোটি ২৪ লাখ এক হাজার ১৮২ টাকা আত্মসাৎ ও পাচারের দায়ে মাল্টি লেভেল মার্কেটিং (এমএলএম) কোম্পানি ডেসটিনির ৫১ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করে দুদক।

২০১২ সালের ৩১ জুলাই দুদকের উপপরিচালক মো. মোজাহার আলী সরদার ও সহকারী পরিচালক মো. তৌফিকুল ইসলাম ২২ জনের বিরুদ্ধে দুটি মামলা দায়ের করেন।