টেকনাফে নামে-বেনামে ইউনিভাসির্টি

প্রকাশ:| বুধবার, ১৫ এপ্রিল , ২০১৫ সময় ০৯:৩৪ অপরাহ্ণ

ফরহাদ রহমান,টেকনাফ প্রতিনিধি।

সরকার বর্হিবিশ্বের সাথে তালমিলিয়ে জঙ্গী নিমূলের অঙ্গিকার করলেও টেকনাফ উপজেলায় রোহিঙ্গা ছাত্র-শিক্ষক যোগান নিয়ে বর্হিবিশ্বে বা আরব আমিরাতে স্বনামে-বেনামে ধর্মীয় ইউনিভার্সিটি নাম দিয়ে কোটি কোটি টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে ধর্ম ব্যবসায়ীরা। এ অর্থের কিংধাংশ জঙ্গীদের প্রশিক্ষণ ক্ষেত্রে ব্যয় হচ্ছে বলে অভিযোগ সূত্রে উল্লেখ রয়েছে। একটি ধর্ম ব্যবসায়ী গোষ্ঠী আরবী নাম ব্যবহার করে সরকারের নাকের ডগায় সরকারকে এড়িয়ে নিজ গদিতে পরিচালিত হয়ে আসছে। যেমন আলজামিয়া এর বাংলা অর্থ বিশ্ববিদ্যালয়, ইংরেজীতে ইউনিভাসির্টি। সরকারের পদস্থ কর্মকতারা ইংরেজী ও বাংলায় শিক্ষিত হওয়ায় আরবীর সাধ্বিক অর্থ বুঝতে না পারায় এক শ্রেণীর কওমী মৌলভী নামধারীরা আল-জামেয়া ইসলামিয়া নাম ব্যবহার করে অথবা তাদের পরিচালিত বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের নামের শুরুতে আল জামিয়া ব্যবহার করে মুসলিম দেশ সমূহকে ইউনিভাসিটি বুঝাইয়া কোটি কোটি টাকা প্রতিবছর হজ্জ ও ওমরার ছন্দবেশে ঐ দেশের ভিসা নিয়ে থাকা সিন্ডিকেটের গচ্ছিত অর্থ আনায়ন করে তাদের পরিচালিত প্রতিষ্টান সমূহ সরকারের দিকে বৃদ্ধা আঙ্গুলি দেখাতে দ্ধিধা বোধ করে না। এব্যাপারে এলাকার সুশীল সমাজ সচেতন মহল মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও শিক্ষামন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

এই ইউনিভাসিটি নামধারীরা কোনদিন সরকারের জাতীয় দিবস, পতাকা ও জাতীয় সংগীত বা সরকারের কোন ধরনের এজেন্ডা বাস্তবায়ন করে না বরং করাকে বৃদ্ধা আঙ্গুলী দেখিয়ে চলে।