শেষ বলে নাটকীয় জয় জিম্বাবুয়ের

প্রকাশ:| বুধবার, ১৯ মার্চ , ২০১৪ সময় ০৫:০৫ অপরাহ্ণ

২ বলে ১ রান প্রয়োজন, এমন অবস্থায় অসম্ভব একটা রান নিতে গিয়ে রান আউট হন সিন উইলিয়ামস। ফলে শেষ বলে টান টান উত্তেজনার সঞ্চার হয়। কিন্তু নতুন ব্যাটসম্যান ভুসি সিবান্দা সব উত্তেজনা উড়িয়ে দিলেন আহসান মালিকের বলে ছক্কা মেরে। ফলে ৫ উইকেটের জয় নিয়ে সুপার টেন পর্বে ওঠার লড়াইয়ে টিকে থাকলো জিম্বাবুয়ে।

এর আগে ১৯তম ওভারের প্রথম বলেই ডাচ পেসার ফন ডার গটেন ৩৯ বলে ২ চার ও ১ ছক্কায় ৪৯ রানের ধৈর্য্যশীল ইনিংস খেলা জিম্বাবুয়ে অধিনায়ক ব্রেন্ডন টেলরকে সাজঘরে ফেরান। ফলে ৩৯ রানের চতুর্থ উইকেট জুটিটি শেষ হয়। তারও আগে ইনিংসের ১৪তম ওভারে জোড়া আঘাত হানেন পিটার সিলার। মাত্র ১ বলের ব্যবধানে তিনি ফেরান ৪৩ রান করা হ্যামিলটন মাসাকাদজা ও কোন রান না করা এলটন চিগুম্বুরাকে। ফলে ৮৭ রানেই ৩ উইকেট হারিয়ে ফেলে জিম্বাবুয়ে।

ডাচদের ছুড়ে দেয়া ১৪১ রানের মামুলি লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে অতি সতর্ক ব্যাটিং করে জিম্বাবুয়ে। উদ্বোধনী ব্যাটসম্যান সিকান্দার রাজা ১২ বলে ১৩ রান করে সাজঘরে ফেরেন পঞ্চম ওভারে। এরপর মাসাকাদজার সঙ্গে যোগ দেন অধিনায়ক ব্রেন্ডন টেলর। তবে সাবধানী ব্যাটিং করে তারা লক্ষ্যকে অনেকটাই দুরুহ করে ফেলেন। দ্বিতীয় উইকেট জুটিতে এ দুজন মূল্যবান ৬২ রান যোগ করেন।

নেদারল্যান্ডসের পক্ষে পিটারসিলার ২ ওভারে মাত্র ৯ রানে ২ উইকেট নেন। এছাড়াও ফন ডার গটেন ২২ রানে এবং আহসান মালিক ৩০ রানে একটি করে উইকেট নেন। জিম্বাবুয়ে অধিনায়ক ব্রেন্ডন টেলর দায়িত্বশীল ইনিংসটির জন্য ম্যাচের সেরা খেলোয়াড় মনোনীত হন।

এর আগে টম কুপারের লড়াকু ব্যাটিং সত্ত্বেও জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে নেদারল্যান্ডস নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেটে ১৪০ রানের সাদামাটা ইনিংস গড়তে সক্ষম হয়। ফলে জয়ের জন্য জিম্বাবুয়ের লক্ষ্য দাঁড়ায় ১৪১ রান। জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে নিজেদের যথাযথভাবে মেলে ধরতে পারেনি নেদারল্যান্ডসের ব্যাটসম্যানরা। ব্যতিক্রম ছিলেন কেবল টম কুপার। সাবলিলভাবে ব্যাটিং করে মাত্র ৫৮ বলে ৯ চার ও ১ ছক্কায় ৭২ রানের হার না মানা ইনিংস উপহার দেন তিনি দলকে। মুদাসসর বুখারি ১৪ রান করে তাকে শেষ দিকে কিছুটা সহায়তা করেন।

এর আগে মাত্র ৩৭ রানে ৪ উইকেট হারানোর পর প্রতিরোধ গড়েছিলেন টম ও বেন কুপার। তবে আসরে প্রথম খেলতে নামা নাতসাই মুসাঙ্গুই ৫২ রানের জুটিটি বিচ্ছিন্ন করেন। ইনিংসের ১৪তম ওভারে দলীয় ৮৭ রানে পঞ্চম ব্যাটসম্যান হিসেবে ফিরলেন ২৪ বলে ২০ রান করা বেন কুপার।

এর আগে ইনিংসের তৃতীয় বলেই ডাচদের অন্যতম ব্যাটিং ভরসা স্টিফান মেবার্ঘের উইকেট তুলে নেন জিম্বাবুয়ের অফ স্পিনার প্রসপার উতসেয়া। আগের ম্যাচে সংযুক্ত আরব আমিরাতের বিপক্ষে চমৎকার ব্যাটিং করা মেবার্ঘ কোন রান না করেই রেগ বিফোরের ফাঁদে পড়েন। এর পরের ওভারেই টিনাশে পানিয়াঙ্গারা তুলে নেন মাত্র ৬ বলে ৩ চারে ১২ রান করা উইকেটরক্ষক ওযেসলি বারেনিকে। তিনি সরাসরি বোল্ড হন দলীয় ১৪ রানের মাথায়। এবার দুই ব্যাটসম্যানের ভুল বোঝাবুঝিতে রান আউট হয়ে সাজঘরে ফেরেন মিচেল স্টোয়ার্ট। দলীয় সংগ্রহ তখন ৩ উইকেটে ১৯ রান।

এর আগে বুধবার সিলেট বিভাগীয় স্টেডিয়ামে টস জিতে নেদারল্যান্ডসের অধিনায়ক পিটার বোরেন প্রথমে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেন।

সংক্ষিপ্ত স্কোর:

নেদারল্যান্ডস ২০ ওভার ১৪০/৫ (টম কুপার অপরাজিত ৭২, বেন কুপার ২০, বুখারি অপরাজিত ১৪, বারেসি ১২, উতসেয়া ২/২৪, মুসাঙ্গুই ১/২৪, পানিয়াঙ্গারা ১/৩৮)

জিম্বাবুয়ে ২০ ওভার ১৪৬/৫ (টেলর ৪৯, মাসাকাদজা ৪৩, উইলিয়ামস ২৬, রাজা ১৩, সিলার ২/৯, গটেন ১/২২, মালিক ১/৩০)

ম্যান অব দ্য ম্যাচ: ব্রেন্ডন টেলর


আরোও সংবাদ