জেএসএস কর্মীকে গুলি করে হত্যা

প্রকাশ:| মঙ্গলবার, ২ জুলাই , ২০১৩ সময় ১০:২৬ অপরাহ্ণ

খাগড়াছড়ির দীঘিনালা উপজেলায় পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির (এমএন লারমা) এক সক্রিয় কর্মীকে গুলি করে হত্যা করা হয়েছে।
পুলিশ জানিয়েছে, উপজেলার মেরুং ইউনিয়নের পূর্ণচন্দ্র কার্বারী পাড়ায় মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৯টার দিকে এই হত্যাকাণ্ড ঘটেছে।
নিহতের নাম মিথন চাকমা প্রকাশ (৪০)। পুলিশ তার লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য জেলা সদর হাসপাতালে পাঠিয়েছে।
পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এলাকায় পুলিশের পাশাপাশি সেনাটহল বাড়ানো হয়েছে।
পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, সকাল সাড়ে ৯টার দিকে বাসা থেকে একটু দুরে মেরুং-লংগদু সড়কে মোটরসাইকেল চালানোর সময় ওঁৎ পেতে থাকা দুই অস্ত্রধারী খুব কাছ থেকে মিথনকে গুলি করে ভূইয়াছড়া এলাকা দিয়ে পালিয়ে যায়।
নিহতের স্ত্রী বাসনা চাকমা জানান, তিন সন্তানের ভরণ-পোষণ যোগাতে খুব কষ্ট হচ্ছিল। তাই ভাড়ায় মোটরসাইকেল চালানোর উদ্দেশ্যে গাড়ি নিয়ে বের হয়েছিলেন মিথন।
দীঘিনালা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা শাহাদাত হোসেন টিটো জানান, এলাকায় রাজনৈতিক আধিপত্য বিস্তার নিয়ে এই হত্যাকাণ্ড হয়েছে বলে ধারণা করা হচ্ছে। মামলার প্রক্রিয়া চলছে।
জনসংহতি সমিতি (এমএন লারমা) দীঘিনালা উপজেলা শাখার সভাপতি প্রীতিময় চাকমা বলেন, মিথন চলতি বছরের ১৭ এপ্রিল সন্তু লারমা সমর্থক সন্ত্রাসীদের হাতে নিহত শান্তিমনি চাকমা ওরফে জামাল্যা হত্যাকাণ্ডের এক নম্বর স্বাক্ষী ছিলেন। ওই হত্যাকাণ্ডে জড়িতরাই এই ঘটনা ঘটিয়েছে।
তবে পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি (সন্তু লারমা) অংশের কেন্দ্রীয় সহকারী তথ্য ও প্রচার সম্পাদক সজীব চাকমা এই হত্যাকাণ্ডে নিজেদের জড়িত থাকার অভিযোগ নাকচ করে বলেন, ওই এলাকায় আমাদের কোনো সাংগঠনিক তৎপরতা নেই।