জালিয়াতি মামলা: উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যানের কারাদণ্ড

প্রকাশ:| সোমবার, ৩০ মে , ২০১৬ সময় ০৯:০৫ অপরাহ্ণ

জামাল উদ্দিন
বান্দরবান প্রতিনিধি ॥
বান্দরবান সদর উপজেলর ভাইস চেয়াম্যান জামাল উদ্দিন চৌধুরী’কে চেক জালিয়াতি মামলায় ৬ মাসের কারাদন্ড দিয়েছে আদালত। একি সঙ্গে বাদীকে ৩০ লক্ষ টাকা প্রদানেরও নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। আজ সোমবার দুপুরে চট্টগ্রামের যুগ্ন জেলা জজ মিজানুর রহমান এ আদেশ দেন। এ ঘটনায় আইনশৃঙ্খলা বাহিনী ভাইস চেয়ারম্যান ও আওয়ামী সহযোগী সংগঠন জেলা যুবলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক জামাল উদ্দিন চৌধুরী’কে গ্রেফতার করে পুলিশ হেফাতে রাখা হয়েছে।
আদালত সূত্রে জানাযায়, ২০১০ সালে বান্দরবানের খাদ্য ব্যবসায়ী মোহাম্মদ আলী ব্যবসায়িক কাজে বিভিন্ন সময়ে আওয়ামীলীগের নেতা জামাল উদ্দিন চৌধুরী’কে ৬০ লক্ষ টাকা দেন। বিভিন্ন সময়ে টাকা ফেরত দেয়ার কথা বললেও দেননি। পরে ৩০ লক্ষ টাকার চেক দিলেও ব্যাংকের ঐ একাউন্টে কোনো টাকা পাওয়া যায়নি। ঐ চেক দেখিয়ে ব্যবসায়ী মোহাম্মদ আলী চট্টগ্রামের যুগ্ন জজ আদালতে চেক জালিয়াতীর একটি মামলা করেন। ঐ মামলায় আদালত এ রায় প্রদান করেছেন।
মামলা বাদী মোহাম্মদ আলী জানান, ২০১০ সালের পর থেকে বারবার টাকা ফেরত দেয়ার জন্য বলা হলেও বিভিন্নভাবে অজুহাত দেখিয়ে টাকাগুলো ফেরত দেয়নি। পরবর্তীতে ৩০ লক্ষ টাকার চেক দিলেও ব্যাংকের ঐ হিসাবে কোনো টাকা না থাকায় উত্তোলন করতে পারিনি।
ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে ব্যবসায়ীর আইনজীবী এ্যাডভোকেট নাইম উদ্দিন বলেন, আদালত মামলার রায়ে জামাল চৌধুরীকে ৬ মাসের কারাদন্ড দিয়েছে। সেই সাথে বাদীকে ৩০ লক্ষ টাকা প্রদানের নির্দেশ দেয়া হয়। তবে সোমবার বিকেলের মধ্যে ১৫ লক্ষ টাকা দিতে পারলে জামিন আবেদন মঞ্জুর হবে বলে আদালত জানিয়েছে। কিন্তু এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত জামাল চৌধুরী টাকা ফেরত দিতে পারেনি বলে খবর পাওয়া গেছে।