ছেলে-মেয়েকে হত্যা করে আত্মহত্যা

প্রকাশ:| সোমবার, ১২ ডিসেম্বর , ২০১৬ সময় ১১:৩৫ অপরাহ্ণ

ফেনীতে পারিবারিক কলহের জের ধরে ছেলে-মেয়েকে হত্যা করে মর্জিনা আক্তার মুক্তা (২৮) নামে এক নারী আত্মহত্যা করেছেন।

সোমবার (১২ ডিসেম্বর) সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে শহরের পশ্চিম উকিলপাড়ার উদির আলীর নতুন বাড়িতে এ ঘটনা ঘটে।

ফেনীর সোনাগাজী উপজেলার বগাদানা ইউনিয়নের দূর্গাপুর এলাকার তারেক মাহমুদ ইতালি থাকেন। ছেলে মাহিন আহমেদ (৪) ও মেয়ে তাসনিম আহমেদ মাহিকে (৮) নিয়ে উকিলপাড়ার উদির আলীর বাড়িতে ভাড়া থাকতেন তার স্ত্রী মুক্তা। মাহি স্থানীয় সেন্ট্রাল প্রাথমিক স্কুলের তৃতীয় শ্রেণির ছাত্রী।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, সোমবার সন্ধ্যায় ঘরের দরজা বন্ধ দেখে প্রতিবেশীরা মুক্তাকে ডাকাডাকি করে। দীর্ঘসময় কোনো সাড়া না পেয়ে তারা মুক্তার ভাই মাসুমকে খবর দেয়। পরে তিনি এসে ঘরের দরজা ভেঙে ভেতরে মুক্তা ও তার দুই ছেলে-মেয়ের মরদেহ দেখতে পান।

মাসুম জানান, কয়েকদিন ধরে স্বামীর সঙ্গে পারিবারিক বিভিন্ন বিষয় নিয়ে ঝগড়া চলছিল মুক্তার। ধারণা করা হচ্ছে, স্বামীর ওপর রাগ করেই ছেলে-মেয়েকে হত্যার পর তিনি আত্মহত্যা করেছেন।

ফেনী মডেল থানার পরিদর্শক রাশেদ খান চৌধূরী জানান, ধারণা করা হচ্ছে, মুক্তা প্রথমে তার সন্তানদের মোবাইল ফোনের ক্যাবল ও গামছা পেঁচিয়ে হত্যা করেন। এরপর বিষপান করে তিনিও আত্মহত্যা করেন।

মরদেহগুলো উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য ফেনী সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হচ্ছে। ময়নাতদন্ত প্রতিবেদন পেলে এ ব্যাপারে বিস্তারিত জানা যাবে বলেও জানান তিনি।


আরোও সংবাদ