ছুরিকাঘাতে নিহত ব্যবসায়ী ফিরোজের জানাযায় মানুষের ঢল

প্রকাশ:| সোমবার, ১৩ নভেম্বর , ২০১৭ সময় ১১:০৭ অপরাহ্ণ

সেলিম উদ্দিন, ঈদগাঁও (কক্সবাজার) প্রতিনিধি, কক্সবাজার সদর উপজেলার ইসলামপুরে সন্ত্রাসীদের ছুরিকাঘাতে নিহত ব্যবসায়ী ফিরোজ আহমদের জানাযায় শোকাহত মানুষের ঢল নামে। সোমবার (১৩ নভেম্বর) সন্ধ্যা ৬ টায় ইসলামপুর বটতলী স্টেশনস্থ ট্রাক পার্কিংয়ে অনুষ্ঠিত জানাযায় সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন কক্সবাজার সদর-রামু আসনের সাবেক সংসদ সদস্য বিএনপি কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির মৎস্য বিষয়ক সম্পাদক লুৎফুর রহমান কাজল, সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান জি.এম রহিম উল্লাহ, ইসলামপুরের সাবেক চেয়ারম্যান নিহত ফিরোজের বাবা অছিয়র রহমান, সাবেক চেয়ারম্যান মনজুর আলম, মাষ্টার আবদুল কাদের, বর্তমান চেয়ারম্যান আবুল কালাম, খুটাখালী তমিজিয়া মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল মাওলানা ওমর হামজা, নিহত ফিরোজের কলেজ পড়–য়া ছাত্র তাহসিন নাহিন প্রমুখ। জানাযায় ইমামতি করেন বাঁশকাটার হাফেজ কবির আহমদ। এদিন চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল থেকে ময়না তদন্ত শেষে নিজ বাসায় নিয়ে আসলে হাজার হাজার মানুষ তাকে একনজর দেখার জন্য বাড়িতে ভিড় জমান। বিকালে তাকে দেখতে যান সদর-রামু আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ¦ সাইমুম সরওয়ার কমল। এসময় তিনি শোকাহত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়ে সন্ত্রাসীদের অবিলম্বে গ্রেফতারের জন্য পুলিশ প্রশাসনকে নির্দেশ দিয়েছেন।
উল্লেখ্য, ১০ নভেম্বর রাতে নাপিতখালী বটতলীস্থ নিজ ব্যবসা প্রতিষ্ঠান থেকে বাড়িতে ফেরার পথে সন্ত্রাসীদের হাতে ছুরিকাহত হন তিনি। তাকে মূমুর্ষ অবস্থায় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীনবস্থায় তার মৃত্যু হয়। মৃত্যুকালে তাঁর বয়স হয়েছিল ৪২ বছর। ফিরোজ আহমদ ৩ সন্তানের জনক। প্রশাসনিক প্রক্রিয়া শেষে তার নামাজে জানাযা নাপিতখালী চাকার দোকান জামে মসজিদ মাঠে অনুষ্টিত হয়। এতে অংশ নেন জনপ্রতিনিধি, সরকারী-বেসরকারী, ব্যবসায়ী, শ্রমিক, কৃষক, সাংবাদিক, রাজনৈতিক, সামাজিক, শিক্ষক, সর্বশ্রেণী-পেশার মানুষ।
সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে বক্তারা বলেন, শান্তিপ্রিয়, সদা হাস্যোজ্জ্বল, সদালাপী ব্যক্তিত্ব মরহুম ফিরোজ আহমের খুনীদের গ্রেফতার পূর্বক আইনের আওতায় এনে ফাঁসির দাবী করেন। বক্তব্য রাখতে গিয়ে নিহতের পিতা অছিয়র রহমান চেয়ারম্যান বাকরূদ্ধ হয়ে পড়েন। পুত্র নাহিন কান্নায় ভেঙ্গে পড়ে তার বাবার জন্য সকলের কাছে দোয়া চেয়েছে। ফিরোজ আহমদের মৃত্যুতে পুরো এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে। খুনীদের গ্রেফতারপূর্বক দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী করেছে এলাকাবাসী।