চোরাই মোটর সাইকেল বিক্রি করতে এসে পুলিশের হাতে গ্রেফতার

প্রকাশ:| শনিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারি , ২০১৭ সময় ০৮:১৯ অপরাহ্ণ

আব্দুর রহমান প্রকাশ সোনা মিয়া (৩০) রিকশা চালাত। পেশাদার মোটর সাইকেল চোর জমির উদ্দিনের (২৮) সঙ্গে পরিচয়ের পর রিকশা চালানোর পাশাপাশি সোনা মিয়াও জড়িয়ে পড়ে চুরির সঙ্গে। জমির মোটর সাইকেল চুরি করে আর চুরির সময় সোনা মিয়া পাহারা দেয়।

শনিবার (২৫ ফেব্রুয়ারি) একটি চোরাই মোটর সাইকেল বিক্রি করতে এসে নগরীর বায়েজিদ বোস্তামি থানা পুলিশের হাতে গ্রেফতার হয়েছে জমির আর সোনা মিয়া। তাদের কাছ থেকে মোটর সাইকেল কিনতে গিয়ে গ্রেফতার হয়েছে রাশেদুল আলম প্রকাশ কাশেদ (২৮) নামে এক যুবক।

বায়েজিদ বোস্তামি থানার ওসি মোহাম্মদ মহসিন বলেন, কালো রংয়ের বাজাজ মডেলের একটি মোটর সাইকেল কক্সবাজারের চকরিয়া থেকে চুরি করে জমির ও সোনা মিয়া নগরীতে বিক্রি করতে এসেছিল। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সকাল ৮টার দিকে তাদের বায়েজিদের কাঁঠালবাগান এলাকা থেকে চোরাই মোটর সাইকেল বিক্রির সময় হাতেনাতে গ্রেফতার করা হয়েছে। জেনেশুনে চোরাই মোটর সাইকেল কিনতে আসায় রাশেদকেও গ্রেফতার করা হয়েছে।জমির করে চুরি, পাহারা দেয় সোনা মিয়া

ওসি জানান, জমির ও সোনা মিয়াদের চক্রে বাবুল নামে আরও একজনের তথ্য পেয়েছে পুলিশ। তাকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। এছাড়া আরও তিনটি মোটর সাইকেল চুরির বিষয়েও তথ্য পেয়েছে পুলিশ। উদ্ধার হওয়া মোটর সাইকেলটির ‍মালিকের সন্ধান চলছে।

গ্রেফতার হওয়া জমিরের বাড়ি কক্সবাজারের মহেশখালীতে এবং সোনা মিয়ার বাড়ি কক্সবাজার সদরে। তবে জমির চকরিয়া উপজেলা সদরে থাকে বলে ওসি জানান।

আটক রাশেদের বাড়ি বায়েজিদের নয়ারহাট এলাকায়।

তিনজনের বিরুদ্ধে চোরাই মোটর সাইকেল কেনাবেচার অভিযোগে মামলা দায়েরের পর আদালতে পাঠানো হয়েছে বলে জানিয়েছেন ওসি মহসিন।